Projonmo Kantho logo
About Us | Contuct Us | Privacy Policy
ঢাকা, সোমবার, ২০ আগস্ট ২০১৮ , সময়- ৯:২৩ অপরাহ্ন
Total Visitor: Projonmo Kantho Media Ltd.
শিরোনাম
অটলবিহারী বাজপেয়ীর অবস্থা সঙ্কটজনক আলোর গতিতে বাংলার আকাশ ছাড়িয়ে বহির্বিশ্বে বঙ্গবন্ধুর নাম গভীর শোক আর শ্রদ্ধায় জাতি স্মরণ করলো বঙ্গবন্ধুকে বাংলাদেশ সরকার গণগ্রেপ্তার চালাচ্ছে - এইচআরডব্লিউ : বিশ্লেষক প্রতিক্রিয়া বঙ্গবন্ধু হত্যায় জড়িত ছিল দেশি-বিদেশি আন্তর্জাতিক চক্র : সেলিম জাতীয় নির্বাচন বানচালের ষড়যন্ত্র চলছে : কামরুল নির্বাচনে বিশ্বাস করি, ভোটের লড়াই করে ক্ষমতায় যেতে চাই : মোহাম্মদ নাসিম কাবুলে আত্মঘাতী বোমা হামলার ঘটনায় ৪৮ জন নিহত এখন পর্যন্ত ৪০ বাংলাদেশি হজযাত্রীর মৃত্যু  বীর মুক্তিযোদ্ধা গোলাম সারওয়ারকে শেষ বিদায় জানালেন বানারীপাড়াবাসী

নাট্যকার মমতাজ হোসেনের দাফন সম্পন্ন


অনলাইন ডেস্ক

আপডেট সময়: ৩০ ডিসেম্বর ২০১৭ ৪:১৭ পিএম:
নাট্যকার মমতাজ হোসেনের দাফন সম্পন্ন

বাংলাদেশ টেলিভিশনে গত শতকের আশির দশকের জনপ্রিয় ধারাবাহিক নাটক ‘সকাল সন্ধ্যা’ ও ‘শুকতারা’র নাট্যকার ও শিশুসাহিত্যিক বেগম মমতাজ হোসেন আর নেই। গত বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে নয়টার দিকে রাজধানীর উত্তরা ক্রিসেন্ট হাসপাতালে শেষনিশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। তাঁর বয়স হয়েছিল ৭৭ বছর।  তার বোনের মেয়ে তানিয়া মোস্তাফিজ সাংবাদিকদের এ খবর নিশ্চিত করেন।

পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, গতকাল শুক্রবার বাদ জুমা উত্তরার ৬ নম্বর সেক্টর জামে মসজিদে জানাজা শেষে বনানী কবরস্থানে বেগম মমতাজকে দাফন করা হয়।

বেগম মমতাজ হোসেনের স্বামী সাবেক পুলিশ কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর হোসেন ১৯৮১ সালে মারা যান। তিনি প্রয়াত চলচ্চিত্র নির্মাতা আলমগীর কবীরের বোন এবং প্রয়াত চিত্রশিল্পী ও চলচ্চিত্র নির্মাতা খালিদ মাহমুদ মিঠুর মা। তাঁকে রোকেয়া পদকে ভূষিত করা হয়। বেগম মমতাজ হোসেন ঢাকার উদয়ন বিদ্যালয়ের অধ্যক্ষ ছিলেন।

বেগম মমতাজকে স্মরণ করে বাংলাদেশ টেলিভিশনের সাবেক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা খ ম হারুন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে লিখেছেন, ‘অবশেষে বেগম মমতাজ হোসেন আমাদের কাছ থেকে চিরবিদায় নিলেন। বাংলাদেশ টেলিভিশনের জনপ্রিয় ধারাবাহিক 'সকাল সন্ধ্যা' ও 'শুকতারা'র সফল নাট্যকার। দীর্ঘ সময় ধরে যাঁর সঙ্গে পরিচয়, কাজের সূত্রে। পারিবারিকভাবে তিনি ছিলেন আমার একজন অভিভাবক, তিনি এখন আর নেই। অনেক কষ্ট বুকে ধারণ করে বেঁচে ছিলেন। নিজের একমাত্র ভাই চলচ্চিত্র পরিচালক আলমগীর কবীর এবং একমাত্র সন্তান চিত্রশিল্পী ও চলচ্চিত্র নির্মাতা খালিদ মাহমুদ মিঠুর দুর্ঘটনায় অকালমৃত্যু মেনে নেওয়া তাঁর জন্য ছিল অনেক কষ্টের। মমতাজ আপা, এখন আপনি যেখানেই থাকুন চিরশান্তিতে থাকুন।’


আপনার মন্তব্য লিখুন...

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ন বেআইনি
Top