Projonmo Kantho logo
About Us | Contuct Us | Privacy Policy
ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ মে ২০১৮ , সময়- ৪:১৫ অপরাহ্ন
Total Visitor: Projonmo Kantho Media Ltd.
শিরোনাম
বাজেটে রোহিঙ্গাদের জন্য দুই হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ রাখা হচ্ছে বাতিল হতে পারে ট্রাম্প - কিম জন ঊনের সঙ্গে শীর্ষ বৈঠক রোহিঙ্গাদের সর্বাত্মক সহযোগিতা করছে বাংলাদেশ গাজীপুর সিটি করপোরেশন : মেয়রপ্রার্থীদের ঘরোয়া নির্বাচনী প্রচারণা অব্যাহত অশ্রুসজল ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূত প্রিয়াঙ্কা, ‘খোদা হাফেজ’ বলে ছাড়লেন রোহিঙ্গা শিবির  মোদি-হাসিনা-মমতার মিলন মেলা ঘিরে বিশ্বভারতীতে সাজ সাজ রব গরীব ও মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে সঠিকভাবে ছাত্র বৃত্তি বিতরণের নির্দেশ বিচারপতি এবং কূটনীতিকদের সম্মানে প্রধানমন্ত্রীর ইফতার তালিকাভুক্ত শীর্ষ মাদক ব্যবসায়ী ১৪১ জন, ঢাকায় রয়েছেন ৪৪ জন অনেক মাদক সম্রাট সংসদেই আছে, আইন করে ফাঁসি দিন : মুহম্মদ এরশাদ 

ঠাকুরগাঁওয়ে একসাথে বিষপানে মা ও মেয়ের মৃত্যু, স্বজনদের দাবী হত্যা


আল মামুন জীবন, ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি

আপডেট সময়: ১৪ ফেব্রুয়ারী ২০১৮ ৪:৪৪ পিএম:
ঠাকুরগাঁওয়ে একসাথে বিষপানে মা ও মেয়ের মৃত্যু, স্বজনদের দাবী হত্যা

ঠাকুরগাঁওয়ের বালিয়াডাঙ্গীতে একই দিনে একসাথে বিষপানে দুপরবেলা এক মহিলা এবং রাতে তার প্রতিবন্ধী মেয়ের মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় দুপুরে মেয়ে ও স্ত্রীর চিকিৎসা না করে থানায় ইউডি মামলা করতে আসলে মহিলার স্বামী আজহারুল ইসলামকে পুলিশ সন্দেহ করে আটক রেখেছে।

মঙ্গলবার দুপুর ১টায় বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার ধনতলা ইউনিয়নের নাগেশ্বরবাড়ী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত মহিলার নাম সাবিনা আক্তার (২৫) ও তার প্রতিবন্ধী মেয়ের নাম শারমিন আক্তার (১৫)। তারা দুজনে নাগেশ্বরবাড়ী গ্রামের আজহারুল ইসলামের স্ত্রী ও কন্যা।

আজহারুল ইসলামের ২য় কন্যা সাথী আক্তার (১০) ও তার বড় ভাই নুরুল ইসলামের স্ত্রী জরিনা বেগম জানায়, মহিলাটি প্রায় ২ বছর ধরে শারীরিক অসুস্থ্য থাকাবস্থায় নিজ পিত্রালয়ে গিয়ে বিভিন্ন ডাক্তারের নিকট চিকিৎসা করেও আরোগ্য লাভ হয়নি। অন্যদিকে তার প্রতিবন্ধী মেয়ে শারমিন কথা বলতে পারেনা, চলাফেরা করতে পারে না। অসুস্থ্য শরীর নিয়ে তার সম্পূর্ণ দেখাশুনার পাশাপাশি অভাব অনটনের জ্বালা সহ্য করতে না পেরে মঙ্গলবার সকালে বাড়ীতে বিষপান করে। স্থানীয় লোকজন বিষয়টি টের পেলে মহিলা ও মেয়েটিকে আটোয়ারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়ার আগেই মহিলার মৃত্যু হয় এবং মেয়েটিকে প্রাথমিক চিকিৎসা করে বাড়ীতে এনে ফেলে রাখে। সন্ধ্যার পর মেয়েটির অবস্থা আশংকা জনক হলে তাকে বালিয়াডাঙ্গী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনা হয় এবং সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাতে মেয়েটির মৃত্যু হয়।

মহিলার স্বামী আজহারুল ইসলাম জানায়, আমাকে স্থানীয় লোকজন থানায় বিষয়টি অবগত করার কথা বললে আমি থানায় চলে আসি। আমার শ্বশুড়বাড়ীর লোকজনের অভিযোগের কারণে আমাকে আটক করা হয়েছে।

বালিয়াডাঙ্গী থানার ওসি মোস্তাফিজার রহমান বলেন, লাশ দুটো উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ বিষয়ে কোন অভিযোগ পেলে পুলিশ তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়া নেবে।

মেয়ের ভাই ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলার রহিমানপুর গ্রামের আব্দুস সালাম বলেন, আমার বোন ও বোনের মেয়ে পরিকল্পিত ভাবে বিষপান করে হত্যা করা হয়েছে। আমরা মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছি। আমি এ হত্যার সুষ্ঠু বিচার দাবী জানাচ্ছি।


আপনার মন্তব্য লিখুন...

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ন বেআইনি
Top