Projonmo Kantho logo
About Us | Contuct Us | Privacy Policy
ঢাকা, শনিবার, ২০ অক্টোবর ২০১৮ , সময়- ৯:৪৯ অপরাহ্ন
Total Visitor: Projonmo Kantho Media Ltd.
শিরোনাম
প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের সমালোচনা করার কারণেই খাশগজিকে হত্যা করা হয়  জাতীয় পার্টির মহাসমাবেশে হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ ১৮ দফা কর্মসূচি ঘোষণা  দেশের শান্তি ও অগ্রগতি অব্যাহত রাখতে স্বাধীনতাবিরোধী অপশক্তি রোধে সবার প্রতি আহ্বান : রাষ্ট্রপতি কারিগরি শিক্ষা ও বিজ্ঞান শিক্ষাকে বিশেষ গুরুত্ব দিচ্ছি : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ব্যারিস্টার মইনুল হোসেনের সংবাদ ৭ দিন বর্জনের আহ্বান : সাংবাদিক নারী সমাজ  সাজাপ্রাপ্ত আসামীদের নিয়ে ডা. কামালের সরকারবিরোধী ঐক্য ব্যর্থ হবে : বাণিজ্যমন্ত্রী সিরিয়ায় মার্কিন বিমান হামলায় শিশুসহ ৩২ জন বেসামরিক ব্যক্তি নিহত আগামী নির্বাচনের রোডম্যাপ ঘোষণা আসছে, জাতীয় পার্টির মহাসমাবেশ আজ আওয়ামী লীগের জনপ্রিয়তা আকাশচুম্বি, জনগণ হৃদয় দিয়ে ভালোবাসে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী | প্রজন্মকণ্ঠ মানুষের ভিড়ের ওপর দিয়ে চলে গেল ট্রেন, ৫০ জন নিহত | প্রজন্মকণ্ঠ

জাকাত ও ইফতারের সামগ্রী নিতে গিয়ে পদপিষ্ট হয়ে মৃত ৯ মহিলা


নিজস্ব প্রতিবেদক, প্রজন্মকণ্ঠ

আপডেট সময়: ১৫ মে ২০১৮ ৩:০৫ এএম:
জাকাত ও ইফতারের সামগ্রী নিতে গিয়ে পদপিষ্ট হয়ে মৃত ৯ মহিলা

জাকাত ও ইফতারের সামগ্রী দান করা হচ্ছিল। তা নিতেই ভিড় জমে যায়। শুরু হয় হুড়োহুড়ি। এই বিশৃঙ্খলাতেই পদপিষ্ট হয়ে মৃত্যু হল নয় মহিলার। মর্মান্তিক এই ঘটনাটি ঘটেছে রাজধানী ঢাকা থেকে প্রায় ৪০০ কিলোমিটার দূরে পূর্ব গাঠিয়া ঢেঙ্গা হাঙ্গরমুখ এলাকায়। ঘটনায় আহত অন্তত ২৫ জন।

সোমবার সকালে হাঙ্গরমুখ এলাকায় কবীর স্টিলমিল লিমিটেডের মালিক শাহজাহানের বাড়ির পাশে মাদ্রাসা মাঠে এ কাণ্ড ঘটে। সাতকানিয়া থানার সেকেন্ড অফিসার সিরাজুল ইসলাম জানান, প্রতি বছরের মতো এবারও দুঃস্থ-গরিবদের মধ্যে জাকাত ও ইফতার সামগ্রী বিতরণের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছিল কোম্পানির পক্ষ থেকে। সেই সময় ভিড়ের মধ্যে পড়ে পদপিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই নয়জনের মৃত্যু হয়। আহতদের স্থানীয় হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত বছরের ডিসেম্বরে চট্টগ্রামের সদ্য প্রয়াত সাবেক মেয়র মহিউদ্দিন চৌধুরির শ্রাদ্ধের অনুষ্ঠানে গিয়ে পদপিষ্ট হয়ে ১০ জনের মৃত্যু হয়েছিল। জখম হয়েছিলেন ৫০-এরও বেশি। আশকারদিঘির পাড়ে রিমা কমিউনিটি সেন্টারে হিন্দু-বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বী-সহ সবধর্মের মানুষের জন্য মেজবানের ব্যবস্থা করা হয়। ৭-৮ হাজার লোকের খাবারের আয়োজন করা হলেও সেখানে ১৫ হাজার লোক অবস্থান করে। 

আচমকা গেট খুলে দেওয়া হলে সবাই হুড়াহুড়ি করে ঢোকার চেষ্টা করে। সেখানে দুপুর ১টার পর প্রচণ্ড ভিড় তৈরি হয়। একসময়ে হুড়োহুড়ির জেরে পদদলিত হয়ে এমন দুর্ঘটনা ঘটে। শাসকদলের পক্ষ থেকে চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামি লিগের সভাপতি মহিউদ্দিন চৌধুরির কুলখানিতে নিহতদের পরিবার পিছু এক লক্ষ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথা ঘোষণা করা হয়েছিল।


আপনার মন্তব্য লিখুন...

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ন বেআইনি
Top