Projonmo Kantho logo
About Us | Contuct Us | Privacy Policy
ঢাকা, বুধবার, ২১ নভেম্বর ২০১৮ , সময়- ২:১০ পূর্বাহ্ন
Total Visitor: Projonmo Kantho Media Ltd.
শিরোনাম
প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন নির্বাচনি জোটের শরিক জাতীয় পাটি পবিত্র ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী (সা.) আজ  প্রধানমন্ত্রীর হাতে ৩৮টি আসনের তালিকা তুলে দিয়েছেন বদরুদ্দোজা চৌধুরী হেলমেট পরে হামলার নির্দেশ দিয়েছিল বিএনপি নেতারা সেই তৃতীয় শক্তির নেতারা আজ কে কোথায় ?  বিদ্যুৎ খাতে দক্ষিণ কোরীয় বিনিয়োগ চাইলেন প্রধানমন্ত্রী বিদেশি টিভি চ্যানেলে দেশিপণ্যের বিজ্ঞাপন প্রচার বন্ধের নির্দেশ অধিকাংশ ইসলামী দলগুলি ভোটের মাঠে আওয়ামী লীগের সঙ্গে | প্রজন্মকণ্ঠ গত পাঁচ বছরে যেসব চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করেছে আ'লীগ সরকার | প্রজন্মকণ্ঠ #মি টু ঝড় এখন বাংলাদেশে 

ময়মনসিংহ বাকৃবির পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানের প্যান্ডেল পুড়ে ছাই 


নিজস্ব প্রতিবেদক, প্রজন্মকণ্ঠ

আপডেট সময়: ২২ জুলাই ২০১৮ ৪:৫০ পিএম:
ময়মনসিংহ বাকৃবির পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানের প্যান্ডেল পুড়ে ছাই 

বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের গৌরব ও সাফল্যের ৫৭তম বছর পূর্তি ও অ্যালামনাই পুনর্মিলনী আজ রোববার বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্তন মাঠে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। ৩০ লাখ টাকা ব্যয়ে পুরো মাঠ সাজানো হয়েছিল। কিন্তু শনিবার মধ্যরাতে আকস্মিক অগ্নিকাণ্ডে অনুষ্ঠানস্থলের সব পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ উপস্থিত থাকার কথা ছিল। অনুষ্ঠানস্থল পুড়ে যাওয়ার পর তাৎক্ষণিকভাবে উপাচার্যের বাসভবনে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের জরুরি সভা অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিল্পাচার্য জয়নুল আবেদিন মিলনায়তনে অনুষ্ঠানের সিদ্ধান্ত হয়। বেলা ২টার অনুষ্ঠানে রাষ্ট্রপতি উপস্থিত থাকবেন বলে জানিয়েছেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আলী আকবর।

সভায় উপাচার্য সাংবাদিকদের বলেন, অনুষ্ঠানের জন্য অনেক সাবেক শিক্ষার্থী ও অতিথি বাইরে থেকে এসেছেন। দুর্ঘটনার কারণে বিকল্প হিসেবে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিল্পাচার্য জয়নুল আবেদিন মিলনায়তনে ৫৭ বছর পূর্তি অনুষ্ঠিত হবে। রাষ্ট্রপতি সেখানে উপস্থিত থাকবেন। তবে মিলনায়তনে দুই হাজার লোকের আসন রয়েছে। সেখানে আসন সংকুলান না হওয়ায় মিলনায়তনের পার্শ্ববর্তী হেলিপ্যাড যেখানে কৃষি প্রযুক্তি মেলা হওয়ার কথা ছিল, সেখানে বাকিদের বসার ব্যবস্থা করা হবে। বড় পর্দায় মূল অনুষ্ঠান দেখার ব্যবস্থা থাকবে। উপাচার্য শিক্ষার্থী এবং অতিথিদের সহযোগিতা কামনা করেন এবং এ দুর্ঘটনার জন্য দুঃখ প্রকাশ করেন।

সরেজমিনে দেখা গেছে, সমাবর্তন মাঠে পাঁচ হাজার লোকের আসনবিশিষ্ট একটি প্যান্ডেল এবং মঞ্চ তৈরি করা হয়েছিল। শনিবার রাত ১২টার দিকে প্যান্ডেলের ওপর একজন হঠাৎ আগুনের ফুলকি দেখতে পান। কয়েক মিনিটের মধ্যে আগুন ভয়াবহ আকার ধারণ করে। ময়মনসিংহ ফায়ার সার্ভিসের মোট সাতটি ইউনিট এক ঘণ্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। তবে প্যান্ডেলের চেয়ার, ফ্যান, সাউন্ড সিস্টেম এবং এলইডি পর্দাসহ অন্য সরঞ্জাম পুড়ে গেছে।

ময়মনসিংহ ফায়ার সার্ভিস এবং সিভিল ডিফেন্সের ভারপ্রাপ্ত উপপরিচালক সহিদুর রহমান বলেন, 'আমরা ঘণ্টাব্যাপী চেষ্টার পর আগুন নেভাতে সক্ষম হই। বৈদ্যুতিক শটসার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত হতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।'


আপনার মন্তব্য লিখুন...

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ন বেআইনি
Top