তৃণমুল নেতাকর্মিদের প্রত্যাশা পুরণে নিঃস্বার্থ ভাবে কাজ করার অঙ্গীকার করলেন সোহাগ 

সাংবাদিকদের পেশাগত কাজকে আরো গতিশীল করতে পটুয়াখালী ৪ আসনের মনোনয়ন প্রত্যাশী কেন্দ্রীয় যুবলীগের সহ সম্পাদক ও সাবেক ছাত্র নেতা এড. শামীম আল সাইফুল সোহাগ কুয়াকাটা প্রেসক্লাবে ১টি কম্পিউটার উপহার দিলেন। বৃহস্পতিবার (১৫ নভেম্বর) রাতে আনুষ্ঠানিক ভাবে প্রেসক্লাবের নেতৃবৃন্দের হাতে এ কম্পিউটার তুলে দেন। এ সময় তার সফরসঙ্গী হিসেবে কলাপাড়া উপজেলার প্রায় শতাধিক নেতাকর্মিরা উপস্থিত ছিলেন। কম্পিউটার উপহার শেষে কুয়াকাটা প্রেসক্লাবের সাংবাদিকদের সাথে এক মতবিনিময় সভা করেন। 

মতবিনিময় সভায় সামীম আল সাইফুল সোহাগ বলেন, পটুয়াখালী ৪ আসন (কলাপাড়া-রাঙ্গাবালী) উপজেলার মানুষের পাশে থেকে তাদের সেবা করতে চান তিনি। কলাপাড়া-রাঙ্গাবালী বাসী আওয়ামীলীগের নেতৃত্বের পরিবর্তন চান। ক্লীন ইমেজ ও তরুন নেতৃত্ব চান তারা। তৃনমূলের নেতাকর্মিরা কর্মী বান্ধব আদর্শবান নেতৃত্ব দেখতে চায় জাতীয় সংসদ নির্বাচনে। সোহাগ বলেন, তৃনমুল নেতাকর্মিদের প্রত্যাশা পুরণের লক্ষ্যে তিনি পটুয়াখালী ৪ আসনের মনোনয়ন ফরম কিনেছেন। 

মনোনয়ন প্রত্যাশীদের সাক্ষাতকারকালে প্রধানমন্ত্রী আওয়ামীলীগকে বিজয়ী করতে তৃনমুল নেতাকর্মিসহ সাধারন ভোটারদের কাছে আওয়ামীলীগের উন্নয়ন কর্মকান্ড তুলে ধরার জন্য বলেছেন। আওয়ামীলীগকে বিজয়ী করতে ঔক্যবন্ধভাবে কাজ করার জন্য বলেছেন। তিনি আরো বলেন, প্রধানমন্ত্রী এ বছর জাতীয় নির্বাচণে তরুণ নেতৃত্বের প্রতি গুরুত্ব দিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা অনুযায়ী তিনি তৃনমুল নেতাকর্মিদের কাছে গিয়ে দলের পক্ষে কাজ করছেন তিনি। সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে সোহাগ বলেন, দল যাকে মনোনয়ন দেবেন তার পক্ষেই তিনি কাজ করবেন।

কুয়াকাটা প্রেসক্লাবের সিনিয়র সহ সভাপতি অনন্ত মুখার্জীর সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় বক্তব্য রাখেন কুয়াকাটা প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি রুমান ইমতিয়াজ তুষার, সাধারন সম্পাদক কাজী সাঈদ প্রমুখ। এর আগে মহিপুর মৎস্যবন্দরে বিভিন্ন শ্রেনী পেশার মানুষের সাথে গন সংযোগ করেন এবং মহিপুর থানা যুবলীগের নেতাকর্মিদের সাথে মতবিনিময় সভা করেন।

পাঠকের মন্তব্য