মদ্যপানে এক বছরে ৩০ লক্ষ মানুষের মৃত্যু : বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা

মদ্যপানের অভ্যেস আছে? নিয়মিত বা অনিয়মিত যায় হোক। মদ্যপানের অভ্যেস থাকলে আপনার জন্য চিন্তার খবর। এখনই সাবধান না হলে অপেক্ষা করছে বড় বিপদ। কারণ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলছে, মদ্যপানের জন্য মাত্র এক বছরে গোটা বিশ্বে মৃত্যু হয়েছে প্রায় ৩০ লক্ষ মানুষের। আর তাতেই উদ্বেগ বাড়ছে মদ্যপায়ীদের।

ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গানাইজেশনের বিপোর্ট বলছে, শুধু ২০১৬ সালে মদ্যপানের কারণে মৃত্যুর সংখ্যা ক্যানসার-সহ অন্যান্য সংক্রমক রোগের সম্মিলিত মৃতের সংখ্যার থেকে বেশি। রিপোর্টে আরও বলা হয়েছে, মদ্যপানে মোট প্রায় ৩০ লক্ষ মানুষের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে অন্তত ৭৫ শতাংশই পুরুষ। গত এক দশকে ভারতে মদ্যপায়ীদের সংখ্যা এবং মদ্যপানের পরিমাণ উদ্বেগজনকভাবে বেড়েছে। ২০০৫ সালের আগে ভারতে মাথা পিছু মদ্যপানের পরিমাণ ছিল ২.৪ লিটার। ২০০৫ থেকে ২০১০ সালের মধ্যে এই পাঁচ বছরে বিপুল হারে বাড়ে ভারতীয়দের মদ্যপানের প্রবণতা। ২০১০ সালে ভারতীয়দের গড় মদ্যপানের পরিমাণ ২.৪ লিটার থেকে বেড়ে হয় ৪.৩ লিটার। 

এই মদ্যপানের পরিমাণ আরও বাড়ে পরবর্তী ৬ বছরে। ২০১৬ সালে মদ্যপানের পরিমাণ বেড়ে দাঁড়ায় ৫.৭ লিটার। রাষ্ট্রসংঘের স্বাস্থ্য বিভাগের রিপোর্টে ভারতের মদ্যপানের ক্রমবর্ধমান প্রবণতাকে অত্যন্ত উদ্বেগজনক বলে বর্ণনা করা হয়েছে। বলা হয়েছে, আগামী কয়েক বছরে শুধু ভারতেই মাথা পিছু মদ্যপানের পরিমাণ ২.২ লিটার পর্যন্ত বাড়তে পারে।

যে ৩০ লক্ষ মানুষ ২০১৬ সালে মদ্যপানের জন্য মারা যান, তাদের মধ্যে ২৮ শতাংশ মানুষ মারা গিয়েছেন দুর্ঘটনাজনিত কারণে। ২১ শতাংশ মানুষ মারা গিয়েছেন নিজেদের মধ্য সংঘর্ষ বা নিজেকে নিজে আঘাত করে। ১৯ শতাংশ মানুষ মারা গিয়েছেন হজমের সমস্যাজনিত কারণে। বাকিরা মারা গিয়েছেন মদ্যপানের ফলে হওয়া শারীরিক ও মানসিক রোগের জন্য হয়েছে।গোটা পৃথিবীতে এমন ২৩ কোটি ৭০ লক্ষ মানুষ আছেন যারা জানেন না, তাদের কী পরিমাণ মদ্যপান করাটা নিরাপদ। 

পাঠকের মন্তব্য