বলিউডে কাজ করছেন নায়িকা শিমলা

রবিবার চট্টগ্রামে দুবাইগামী বাংলাদেশি বিমান ‘ছিনতাই’ নাটকের পর থেকেই আলোচনার তুঙ্গে রয়েছেন নায়িকা শিমলা। যাঁকে নিজের বিবাহিত স্ত্রী বলে পরিচয় দিয়েছিলেন নাটকের মূল নায়ক মাহমুদ পলাশ। এই অভিনেত্রী কিন্তু এই মুহূর্তে রয়েছেন মুম্বইতে। বলিউডে ‘সফর’ নামে একটি ছবির শুটিংয়ে ব্যস্ত। এমনই জানিয়েছেন শিমলার ভাই আসাদুজ্জামান ভুট্টো। তিনি আরও জানান, ‘পলাশের সঙ্গে গত বছর বিয়ে হয়েছিলো শিমলার কিন্তু পলাশের বেপরোয়া জীবনযাপন দেখে সাড়ে তিন মাস আগে পলাশকে ডিভোর্স দেন। এখন আর ওদের কোনও সম্পর্ক নেই।’ রবিবার চট্টগ্রাম বিমানবন্দরে বিমান ছিনতাইয়ের চেষ্টা করতে গিয়ে কমান্ডো অভিযানে নিহত হয় তরুণ মাহমুদ পলাশ। 

শিমলা নামের এই অভিনেত্রী চলচ্চিত্র জগতে বেশ আলোচিত নাম। প্রথম চলচ্চিত্রে অভিনয় করেই জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেছেন, এমন কম সংখ্যক অভিনেত্রীদের মধ্যে শিমলা অন্যতম। শহিদুল ইসলাম খোকনের পরিচালনায় ‘ম্যাডাম ফুলি’ সিনেমায় অভিনয়ের মাধ্যমে তিনি চলচ্চিত্রে যাত্রা শুরু করেন ১৯৯৯ সালে। সেবছরই জাতীয় পুরস্কার পান। প্রথম ছবির এই সাফল্যে তাকে আর পিছনে ফিরে তাকাতে হয়নি। তবে সাম্প্রতিক সময়ে কাজ নিয়ে পরিচালক, প্রযোজকদের সঙ্গে তাঁর বেশ বিরোধ শুরু হয়। রাশিদ পলাশ নামে এক পরিচালকের সঙ্গে শিমলা ‘নাইওর’ নামে একটি ছবির কাজ শুরু করলেও প্রযোজক সংক্রান্ত জটিলতায় তা আটকে যায়। বেশ কয়েকবার শুটিং শেষ করার বিষয়ে পরিচালক ও শিমলা আলোচনা করলেও, কাজটি শেষ হয়নি।

২০১৮ সালের ১ জানুয়ারি ‘বিয়ে করছেন শিমলা’ শিরোনামে একটি প্রতিবেদনে জানানো হয়, মাহিবি জাহান নামে একজনের সঙ্গে নায়িকা শিমলা বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয়েছেন।  জানা যায়, পেশায় ব্যবসায়ী মাহিবি জাহান থাকেন লন্ডনে।পারিবারিক ব্যবসা দেখাশোনা করেন সেখানে। তাঁর বাড়ি নারায়ণগঞ্জে। ভাল লাগা থেকে ভালবাসা এবং বিবাহ। শিমলার সঙ্গে মাহিবির বয়সের ব্যবধান ২২ বছর। মাহিবির ফেসবুকে দেখা গিয়েছে, শিমলার সঙ্গে তার একাধিক ছবি। 

কিন্তু কিছুদিন পরই বিচ্ছেদ হয়ে যায় তাঁদের মধ্যে। শিমলা একটি মিডিয়াকে বলেন, ‘মানুষ হিসেবে একটা বোধ আছে তো। বিয়ের বিষয়টা সম্পূর্ণ স্রষ্টার হাতে। আমি চেষ্টা করেছি। কিন্তু চাইলেও একসঙ্গে থাকতে পারিনি। সৃষ্টিকর্তা যেদিন চাইবেন, সেদিনই সব হবে। তবে ব্যাচেলর জীবনটাকে উপভোগ করছি। বিয়ের সময় তো এখনও ফুরিয়ে যায়নি।’ আর তারপর থেকেই মাহিবি ভিতরে ভিতরে ফুঁসছিলেন। যা থেকে বিমান অপরহণের নাটক করে সে।

মাহিবির বাবা পিয়ার জাহান জানান, তাঁর ছেলের আসল নাম মাহমুদ পলাশ। তবে সোশ্যাল মিডিয়ায় পরিচিত ছিল মাহিবি জাহান নামে। প্রবাসে বাবার দেওয়া টাকাপয়সা নিয়ে উচ্ছৃঙ্খল জীবনযাপন করে আসছিলেন। বন্ধুদের সঙ্গে হইহুল্লোড়ে দিন কাটত তার।এর মধ্যে নাচগান থেকে শুরু করে চলচ্চিত্র শিল্পে পর্যন্ত জড়ায় সে। একটা সময় বাড়ি ছেড়ে ঢাকায় চলে যায় পলাশ।কয়েকটি শর্টফিল্মও তৈরি করে বলে জানায় তার পরিবার। 

পাঠকের মন্তব্য