বিশ্বকাপের আগে বিয়ের ধুম ক্রিকেটারদের মধ্যে

খুব তাড়াতাড়ি বিয়ে করতে চলেছেন দুই ক্রিকেটার মেহেদি হাসান মিরাজ এবং মুস্তাফিজুর রহমান। ২২ বছর বয়সী মেহেদি হাসান মিরাজ এখন একটা নির্ভরতার প্রতীক। আর তাঁর জীবনে নির্ভরতা দিতে এবার আসছেন একজন নারী। তাঁর হাত ধরেই বিয়ের পিঁড়িতে বসতে যাচ্ছেন জাতীয় দলের এই অলরাউন্ডার। অর্ধযুগের প্রেম এবার পরিণয়ে রূপ নিচ্ছে। কনের নাম রাবেয়া আখতার প্রীতি। 

দুজনের বাড়িই খুলনা শহরে। নিউজিল্যান্ড সফরকালেই মিরাজের বিয়ের খবর চাউর হয়। তবে তারিখটা তখনও ঠিক হয়নি। এখন জানা যাচ্ছে বিয়ের অনুষ্ঠানটা হবে বিশ্বকাপের পর। তবে এখনই আনুষ্ঠানিকভাবে এবিষয়ে কিছু বলতে রাজি হননি মিরাজ।

আর বিশ্বকাপের আগে দীর্ঘ বিরতিতে বিয়ের পিঁড়িতে বসছেন পেসার মুস্তাফিজুর রহমান। কয়েকদিন আগেই বিয়ে করেছেন আরেক খেলোয়াড় সাব্বির। শোনা যাচ্ছে মিরাজ ও মুস্তাফিজুরের মতোই দ্রুত বিয়ের পিঁড়িতে বসতে যাচ্ছেন মুমিনুল হকও। এই ফাঁকা সময়ে যেন ক্রিকেটারদের বিয়ের ধুম পড়ে গেছে। আসলে বিশ্বকাপের আগে রয়েছে লম্বা একটা বিরতি। এই সুযোগে জীবনের নতুন ইনিংসটা শুরু করে দিচ্ছেন ক্রিকেটারদের অনেকে। কদিন আগেই যেমন বিয়ে করলেন সাব্বির রহমান। একইপথে হাঁটছেন মুস্তাফিজুর রহমান ও মেহেদি হাসান মিরাজ। সেই ধারাবাহিকতায় এপ্রিলেই বিয়ের পিঁড়িতে বসতে যাচ্ছেন জাতীয় দলের আরেক ক্রিকেটার মুমিনুল হক।

জানা গিয়েছে, ২৭ বছর বয়সী মুমিনুলের হবু বধূর নাম ফারিহা বাশার। বাড়ি মিরপুর ডিওএইচএসে। ফারিহা বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালসের (বিইউপি) ব্যবস্থাপনা বিভাগের শিক্ষার্থী। বিয়ের খবর নিশ্চিত করে মুমিনুল হক নিজেই সাংবাদিকদের বলেছেন, “আমন্ত্রণপত্র বানাতে দেওয়া হয়েছে। আগামী ১৯ এপ্রিল বিয়ের সব আনুষ্ঠানিকতা আমরা সেরে ফেলব।” 

নিউজিল্যান্ড সফর শেষ হওয়ার পর বিশ্বকাপের আগে লম্বা বিরতি। সেই বিরতিতে বিয়ের কাজটা এগিয়ে রাখছেন মুস্তাফিজুর রহমান। মায়ের ইচ্ছাতেই মামাতো বোন শিমুকে বিয়ে করছেন তিনি। আগামিকাল শুক্রবার তাঁরা বিবাহবন্ধনে বাঁধা পড়তে যাচ্ছেন বলে জানা গিয়েছে।

পাঠকের মন্তব্য