আমাদের পরিশ্রম ফাইনালে পৌঁছনোর জন্য

মাশরাফি বিন মুর্তজা

মাশরাফি বিন মুর্তজা

দলীয় পারফম্যান্সের কারণেই ডাবলিনে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে সহজ জয় পেয়েছে বাংলাদেশ। বোলাররা উইকেট পেয়েছেন। ব্যাটসম্যানরা খেলেছেন দেখেশুনে। বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা বলেন, এমন জয় বিশ্বকাপে আত্মবিশ্বাস জোগাবে। ম্যাচশেষে এমন মন্তব্য করেন মাশরাফি। আর টাইগারদের বিপক্ষে হেরেও হতাশ নয় উইন্ডিজ। ঘুরে দাঁড়ানোর আশা অধিনায়ক জেসন হোল্ডারের।

ঠাণ্ডার মধ্যেও বাংলাদেশ শিবিরে উষ্ণতা। বিশ্বকাপে ভালো খেলতে কন্ডিশন জয় করাটাইতো আসল চ্যালেঞ্জ। সে যাত্রায় শুরুটা হলো দারুণ। জয় এসেছে হেসে খেলে। জয়ের ধরণটাই অনুপ্রেরণা জোগাবে বাংলাদেশকে। বললেন টাইগার কাপ্তান মাশরাফি।

তিনি বলেন, 'শুরুটা সবসময়ই গুরুত্বপূর্ণ। আমি মনে করি, প্রস্তুতি ম্যাচে হারার পর ছেলেরা দারুণ করেছে। পরের ম্যাচের জন্য এটা উৎসাহ যোগাবে।'

আগের ম্যাচে হেসে খেলে ব্যাট করা ক্যারিবীয়দের তিনশ'র নিচে আটকে রাখায়, বোলারদের কৃতিত্ব দিতেই হবে। উইকেট পেয়েছেন সবাই। অধিনায়ক নেতৃত্ব নিয়েছেন সামনে থেকে। এক মোস্তাফিজ ছাড়া বাকিদের ইকোনমি রেটও আশা জাগানিয়া।

ব্যাটিংয়ে নির্ভার বাংলাদেশ। তামিম-সৌম্য খেলেছেন দেখেশুনে। অস্থিরতা ছিলোনা; ছিলো জয়ের পথে এগিয়ে যাওয়ার দারুণ প্রত্যয়। দুজনই পারতেন ম্যাজিক ফিগার স্পর্শ করতে। সেটা হয়নিতো কি হয়েছে? একবারও বিপর্যয়ে পড়েনি লাল সবুজের দল। সাকিব-মুশফিক নির্ভরতা। জয় নিয়ে ছেড়েছেন মাঠ।

মাশরাফি বলেন, এখনো সবার সুযোগ আছে। আমাদের কঠোর পরিশ্রম করে যেতে হবে ফাইনালে পৌঁছনোর জন্য। আমরা এখন সামনের দিকে তাকিয়ে আছি।'

টাইগারদের বিপক্ষে হেরেও হতাশ নয় উইন্ডিজ। অধিনায়ক জেসন হোল্ডার মনে করেন, এখনো পড়ে আছে বহু সময়। ঘুরে দাঁড়ানোর সব সামর্থ্য আচে তাদের। তিনি বলেন, 'কিছু সুযোগ মিস করেছি। নাহলে আরো ভালো হতে পারতো। আর বাংলাদেশ দারুণ খেলেছে। আমরা মাত্র দু'টো ম্যাচ খেলেছি। এখনো হতাশ হওয়ার কিছু নেই। আমরা ঘুরে দাঁড়াবো।'

পাঠকের মন্তব্য