রাজশাহীতে লটারীর নামে অশ্লীল নাচ-গান ও জুয়ার আসর

রাজশাহীতে লটারীর নামে অশ্লীল নাচ-গান ও জুয়ার আসর

রাজশাহীতে লটারীর নামে অশ্লীল নাচ-গান ও জুয়ার আসর

রাজশাহীর পুঠিয়ার উপজেলার কার্ত্তিকপাড়ায় ঈদ আনন্দ মেলায় লটারীর নামে জুয়া ও অশ্লীল নাচ-গানের আসর বসানো হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। নাম না প্রকাশের শর্তে এলাকাবাসী জানায়, ঈদের পরের দিন থেকে প্রস্তুতি চললেও রাজশাহী- ৫ (পুঠিয়া-দুর্গাপুরের) এর সংসদ সদস্য ডাঃ মনসুর রহমান ঈদের ৩ দিন পর ৯ জুন রবিবার সন্ধ্যায় এসে মেলার উদ্ধোধন করেন। উদ্ধোধনী অনুষ্ঠানে বক্তারা অশ্লীল নাচ ও জুয়া না চলানোর পক্ষে বক্তব্য প্রদান করেন। এরপর সার্কাস ও গানের আসর চলছিল।

বৃহস্পতিবার সকাল থেকে প্রায় ২ শতাধিক ব্যাটারী চালিত অটো-রিক্সা নিয়ে লটারীর নামে জুয়ার টিকিট বিক্রয়ের উদ্দেশ্যে রাজশাহী, নাটোর ও নওগাঁ জেলার বিভিন্ন এলাকার উদ্দেশ্যে রওনা হয়েছে। আজকের প্রথম পুরস্কার ৮০ সিসির মোটর-সাইকেল সহ ৮০ টি পুরুস্কার থাকছে, তা বিক্রি করছে দৈনিক উল্লাস র‌্যাফেল-ড্র তার টিকিটের মূল্য- ২০ টাকা। এছাড়া মাইকিং এর মাধ্যমে জানানো হচ্ছে সার্কাস ও নাচ গানের আসরের কথা। কিন্তু রাত ৯ টা থেকে চলে ঝাঁকানাকা বিশেষ শো এর নামে চলে অশ্লীল নাচগান। অসুস্থ্য ধারার বিনোদন পরিহার করে সুস্থ্য ধারার বিনোদন ও মেলা পরিচালনার জন্য প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেন এলাকাবাসী।

শিলমাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সাজ্জাদ হোসেন মুকুল জানান, গত রবিবার সন্ধ্যায় সংসদ সদস্য ডাঃ মনসুর রহমান ও প্রশাসনের উপস্থিতিতে মেলা উদ্ধোধনের সময় আমরা বলেছিলাম সুস্থ্য বিনোদনের জন্য মেলার প্রয়োজন আছে। এই জন্য মেলা হোক আমরা চাই। কিন্তু মেলার নামে অশ্লীল নৃত্য, জুয়া এবং মাদক ব্যবসা চলুক তা আমরা কখনই চায়না।

আর তা যদি চলে এরকম কিছু যদি চলে তাহলে প্রশাসনকে ব্যবস্থ গ্রহণের জন্য অনুরোধ জানাবো। উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ ওলিউজ্জামান জানান, মেলা কমিটির লোকজন মেলা চালানোর অনুমতি নিয়েছে। সাথে কি কি চালানোর অনুমতি নিয়েছে তা তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। 

পাঠকের মন্তব্য