রশিদের সমালোচকদের একহাত নিলেন তারকা ক্রিকেটাররা

রশিদের সমালোচকদের একহাত নিলেন তারকা ক্রিকেটাররা

রশিদের সমালোচকদের একহাত নিলেন তারকা ক্রিকেটাররা

আফগানিস্তানের এক নতুন রূপই দেখা যাচ্ছে এই বিশ্বকাপে। বিশ্বকাপের আগে বড় দলগুলোর বিপক্ষে নিয়মিত না জিততে পারলেও লড়াই করার একটা মানসিকতা দেখাতো আফগানিস্তান। এশিয়া কাপে নিজেদের শেষ বিন্দু দিয়ে লড়াই করে তারা। বিশ্বকাপেও পাকিস্তানকে ওয়ার্ম আপ ম্যাচে হারিয়ে ভালো কিছুর ইঙ্গিত দেয় তারা। তবে বিশ্বকাপে এসেই যেনো খেই হারিয়ে ফেলেছে তারা। কোন প্রকার প্রতিদ্বন্দ্বিতাই গড়তে পারছেনা আফগানিস্তান। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ১৫০ রানের বিশাল ব্যবধানে হারে রশিদ খানের দল।

তারকা স্পিনার রশিদ খান রান দেওয়ায় বিশ্ব রেকর্ড গড়েন। ৯ ওভারে মোট ১১০ রান দেন রশিদ খান যা আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে যুগ্মভাবে ২য় সর্বোচ্চ খরুচে ও একজন স্পিনারের জন্য সর্বোচ্চ খরুচে স্পেল। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তাকে নিয়ে ট্রলের বন্যা বয়ে গিয়েছে। তাকে নিয়ে বানানো হচ্ছে বিভিন্ন ধরনের ঠাট্টা, কৌতুক। শুধু প্রতিষ্ঠিত ক্রিকেট দলের ভক্তরাই নয় রশিদকে নিয়ে ঠাট্টা করা থেকে বিরত থাকেনি পুঁচকে ক্রিকেট দল আইসল্যান্ডও। আইসল্যান্ড ক্রিকেট দলের টুইটার একাউন্ট থেকেও রশিদ খানকে নিয়ে করা হয় ঠাট্টা।

আইসল্যান্ড ক্রিকেট দলের টুইটার একাউন্ট থেকে ঠাট্টা করেই টুইট করা হয়” রশিদ খানকে অভিনন্দন বিশ্বকাপের ইতিহাসে প্রথম আফগানিস্তানি খেলোয়াড় হিসেবে শতক করার জন্য।”

তবে আইসল্যান্ডের এই টুইট ভালোভাবে নেয়নি ক্রিকেট ভক্তরা। শুধু ভক্তরাই নয় তারকা ক্রিকেটাররাও আইসল্যান্ড ক্রিকেটের এই টুইট ও রশিদকে নিয়ে এই সমালোচনা পছন্দ করেননি। টুইট করে সমালোচকদের একহাত নিয়েছেন তারকা ক্রিকেটার লুক রাইট, জোফরা আর্চার, স্টুয়ার্ট ব্রড ও ইস সোদি। রশিদের পাশেই দাড়িয়েছেন এই কঠিন সময়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটাররা।

ভক্তরাও আইসল্যান্ডকে একহাত নিয়েছে রশিদের সমালোচনা করায়। তাদের দাবি আইসল্যান্ডের এখনো যোগ্যতা হয়নি রশিদের মতো খেলোয়াড়ের সমালোচনা করার। আফগানিস্তানের পরবর্তী ম্যাচ ভারতের বিপক্ষে ২২ই জুন সাউদাম্পটনের রোজ বোল স্টেডিয়ামে। তার ২ দিন পরই ২৪ই জুন সাউদাম্পটনেই বাংলাদেশের বিপক্ষেও খেলবে আফগানিস্তান।

পাঠকের মন্তব্য