গুজব আতঙ্ক প্রতিরোধে ৫ নির্দেশনা দিলেন প্রধানমন্ত্রী

লন্ডনে অবস্থানরত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

লন্ডনে অবস্থানরত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

লন্ডনে অবস্থানরত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সারাদেশে গুজব এবং আইন নিজের হাতে তুলে নেয়ার ব্যাপারে আওয়ামী লীগকে সক্রিয় করার নির্দেশ দিয়েছেন। এ ব্যাপারে দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরকে তিনি নির্দেশনা দিয়েছেন। বলেছেন, পাড়া মহল্লায় প্রত্যেকটি এলাকায় আওয়ামী লীগের উদ্যোগে নাগরিক কমিটি গঠন করার জন্য।

উল্লেখ্য যে, গত কিছুদিন ধরে নানা রকম গুজব ছড়িয়ে দেশে অস্থিতিশীল পরিস্থিতি সৃষ্টি করার চেষ্টা করছে একটি মহল। ছেলে ধরা সন্দেহে বেশ কয়েকজনকে পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে। পদ্মা সেতুতে মাথা লাগবে এমন গুজব ছড়িয়ে দেশে একটি আতঙ্ক ছড়ানোর পাঁয়তারা করছে মহলটি।

বিশেষ উদ্দেশ্য সাধনের জন্য সরকারকে বিব্রতকর এবং অস্থিতিশীল পরিস্থিতিতে ফেলানোর জন্যই এ ধরণের ঘটনা ঘটানো হচ্ছে। এর পরিপ্রেক্ষিতে লন্ডন থেকে প্রধানমন্ত্রী আজ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদককে দলকে সাংগঠনিকভাবে সক্রিয় হওয়ার নির্দেশনা দিয়েছেন।

আওয়ামী লীগের দায়িত্বশীল সূত্রগুলো জানিয়েছে, সেতু মন্ত্রীকে এ ব্যাপারে ৫ দফা নির্দেশনা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। এই ৫ দফা নির্দেশনা প্রজন্মকন্ঠের পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো-

১. প্রত্যেক এলাকায় স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দর কাছে অবিলম্বে বার্তা দিতে হবে যে, এ ধরনের গুজব এবং আইন নিজের হাতে তুলে নেওয়ার ব্যাপারে তারা যেন সতর্ক থাকে এবং জনগণের পাশে গিয়ে যেন তাদের সচেষ্ট করে। জনগণকে যেন তারা সচেতন হতে সহায়তা করে।

২. প্রত্যেক পাড়া মহল্লায় সাধারণ মানুষকে সম্পৃক্ত করে আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দকে নাগরিক কমিটি গঠন করার নির্দেশ দিয়েছেন।

৩. স্কুলগুলোতে অভিভাবক ও শিক্ষকদের নিয়ে যৌথ সভা করার নির্দেশনা দিয়েছেন।

৪. প্রত্যেকটা পাড়া-মহল্লা, মসজিদ- মন্দিরে এ ব্যাপারে সচেতনতা তৈরির জন্য ইমাম, পুরোহিত বা পাদ্রীদের যেন আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে অনুরোধ জানানো হয় সে ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রী নির্দেশনা দিয়েছেন।

৫. আইনপ্রয়োগকারী সংস্থাকে এ ব্যাপারে সর্বাত্মক সহযোগিতা করার জন্য নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, সারাদেশে যে গুজব সন্ত্রাস এবং আতঙ্ক সৃষ্টির পাঁয়তারা হচ্ছে সেটা স্পষ্টতই একটা পরিকল্পনা বলে এখন স্পষ্টতত প্রতীয়মান হচ্ছে। এ বাস্তবতায় আমরা দলকে সক্রিয় করবো। আমরা আওয়ামী লীগের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীরা তৃণমূল পর্যায়ের মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে এ ধরণের গুজব সন্ত্রাসকে প্রতিহত করবো। অতীতে যেমন আমরা অগ্নি সন্ত্রাস বা অরাজক পর্যায়ের পরিস্থিতি মোকাবিলা করেছি এবারও আওয়ামী লীগ একইভাবে আতঙ্ক থেকে জাতিকে মুক্তি দিবে।

তিনি মনে করেন, আওয়ামী লীগ সাধারণ জনগণকে পাশে নিয়ে এই পরিস্থিতি থেকে খুব শীঘ্রই দেশকে মুক্ত করবে।

পাঠকের মন্তব্য