ময়মনসিংহের ফুলপুরে শিশু ধর্ষণ অভিযোগে আটক ১

ময়মনসিংহের ফুলপুরে শিশু ধর্ষণ অভিযোগে আটক ১

ময়মনসিংহের ফুলপুরে শিশু ধর্ষণ অভিযোগে আটক ১

ময়মনসিংহের ফুলপুর উপজেলায় বসতঘরে ডেকে নিয়ে স্ত্রীর সহায়তায় এক শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। শিশুকে ধর্ষণের অভিযোগে দুলা ফকির (৬০) নামে এক বৃদ্ধকে আটক করেছে ফুলপুর থানা পুলিশ। রবিবার রুপসী ইউনিয়নের বাট্রা গ্রাম থেকে তাকে আটক করা হয়।

জানা যায়, ফুলপুর উপজেলার বাট্রা গ্রামের এক দিন মুজুরের মেয়েকে শনিবার দুপুরে দুলা ফকিরের পুকুরে  গোসল করতে যায়। এ সময় দুলা ফকির কৌশলে ডেকে নিয়ে তার বসত ঘরের দরজা বন্ধ করে শিশুটিকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। এ কাজে ধর্ষণকারীর স্ত্রী মদিনা খাতুন সহায়তা করেছেন বলে অভিযোগ করেছেন ধর্ষণের শিকার শিশু ও তার পরিবার।

ভুক্তভোগী পরিবার জানায়, শিশুটিকে একা পেয়ে কৌশলে তার বসতঘরে নিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে লম্পট দুলা  ফকির। এ সময় শিশুটি চিৎকার করতে চাইলে তার মুখ চেপে ধরে ও হত্যার হুমকি দেয়। এ ঘটনা বাড়ির পার্শ্ববর্তী লোকজন টের পেলে শিশুটির মা-বাবাকে খবর দেন তারা। পরে ধর্ষণকারীর বসতঘর থেকে শিশুটিকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে ফুলপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করা হয়। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে চিকিৎসকরা উন্নত চিকিৎসার জন্য  ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন। বর্তমানে সেখানে চিকিৎসাধীন রয়েছে শিশুটি।

এদিকে এ ঘটনায় ধর্ষণকারী দুলা ফকির ও তার স্ত্রী মদিনা খাতুনকে আসামি করে রবিবার ফুলপুর থানায় মামলা দায়ের করেন শিশুটির বাবা। মামলা দায়েরের পর আসামি দুলা ফকিরকে রবিবার গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

ফুলপুর থানার সেকেন্ড অফিসার মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই সুমন মিয়া জানান, মামলা হওয়ার সাথে সাথে প্রধান  আসামি দুলা ফকিরকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠানো হয়েছে। তিনি আরো জানান, প্রাথমিকভাবে আসামির বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগের সত্যতা পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় অন্য আসামিকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

পাঠকের মন্তব্য