অসহায় জমির মালিক, জোর পূর্বক রেজিষ্ট্রি দলিল লিখে নেয়ার অভিযোগ 

অসহায় জমির মালিক, জোর পূর্বক রেজিষ্ট্রি দলিল লিখে নেয়ার অভিযোগ 

অসহায় জমির মালিক, জোর পূর্বক রেজিষ্ট্রি দলিল লিখে নেয়ার অভিযোগ 

নারায়নগঞ্জের সোনারগাঁ পৌরসভার লাহাপাড়া এলাকায় শালীশের নামে এক দরিদ্র অসহায় পরিবারের বসতবাড়ি দখলের অভিযোগ উঠেছে বিচারক ও প্রভাবশালীদের বিরুদ্ধে। ওই জমি নিয়ে আদালতে একটি মামলা বিচারাধীন থাকার পরও গ্রাম্য মাতাব্বররা আইনের তোয়াক্কা না করে তাদের মনগড়া আদেশ দিয়ে ওই দরিদ্র অসহায় পরিবারটিকে বাড়ি ছাড়া করার পায়তারা করছে। এ ঘটনায় অসহায় এ পরিবারটি সু-বিচার পাওয়ার আশায় দ্বারে  দ্বারে ঘুরছে। তারা প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেছে।

সূত্র জানায় , উপজেলার সোনারগাঁ পৌরসভার লাহাপাড়া গ্রামের মৃত আব্দুল কাদিরের সন্তানেরা পিতার দলিল মূলে ১২ শতাংশ জমির মালিকানা ভোগ দখল করে আসছে।দরিদ্র এই নিরীহ পরিবারের বসত বাড়িটির উপর সম্প্রতি একই গ্রামের আঃ লতিফ গংয়ের নেতৃত্বে একটি সন্ত্রাসী কুচক্রী মহলের লোলুপ দৃষ্টি পড়ে। ৮৫ বয়স উর্দ্ধো তাদের বিধবা বৃদ্ধা মাকে নিয়ে এই বাড়িতে বসবাসরত মৃত আব্দুল কাদেরের বড় ছেলে রাজ মিস্ত্রী'র জোগালি (হেলপার) নুর ইসলামকে এই বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দেওয়ার জন্য সন্ত্রাসী এই কুচক্রী বাহিনীটি বিভিন্ন ভাবে হয়রানি প্রাণনাশের হুমকী দিয়ে আসছে। এই নিয়ে বহুবার বিচার শালিস হয় এবং জমিটি নিয়ে আদালতে একটি মামলা (বিজ্ঞ যুগ্ম- জেলা জজ দ্বিতীয় আদালত, নারায়ণগঞ্জ, দেঃ নং-৬০৪/১১) বিচারাধীর রয়েছে। মামলা থাকার পরও এই কুচক্রী মহলের পক্ষে গত ৭ অক্টোবর সোমবার সোনারগাঁ পৌরসভার ৭ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র বিএনপির নেতা নাছিম পাশার নেতৃত্বে পৌরসভা কার্যালয়ে মেয়রের কামরায় একটি পরিকল্পিত ও সাজানো বিচার শালিস বসানো হয়। এই শালিসে সন্ত্রাসীদের পক্ষে স্থানীয় আওয়ামীলীগের নামধারী নেতা মোঃ হুমায়ন প্রধান, ক্ষমতাশীন দলের প্রভাবশালী এক নেতার আত্মীয় পরিচয় দেওয়া নেতা মোঃ মাসুম, পৌরসভার জাতীয় পার্টির নেতা এমএ জামান, যুবসংঘের সভাপতি মোতালেব মিয়া স্বপনসহ প্রভাবশালী আরো নেতারা সন্ত্রাসীদের পক্ষে অবস্থান নিয়ে রায় দেয়। তারা জমির অসহায় মালিক নুর ইসলামকে একা পেয়ে আদালতের বিচারাধীন মামলার প্রতি কোন প্রকার শ্রদ্ধা না দেখিয়ে শালিসের নামে সন্ত্রাসীদের পক্ষে এক তরফা রায় দিয়ে জমির প্রকৃত মালিককে তার বৃদ্ধা মা, ছোট ছোট সন্তানসহ বাড়ি থেকে উচ্ছেদ করার পায়তারা করছে। তারা ১০ অক্টোবর বৃহস্পতিবারের মধ্যে বসত বাড়ির দখল সন্ত্রাসীদের বুঝিয়ে দিয়ে রেজিষ্ট্রি দলিল করে লিখে দেওয়ার জন্য সাদা কাগজে জোর পূর্বক বাড়ির মালিক দরিদ্র নুর ইসলামের স্বাক্ষর নেয়।

এ বিষয়ে  যুবসংঘের সভাপতি মোতালেব মিয়া স্বপন জানান, আমি এই বিষয়ে কিছুই জানি না। ঘটনাক্রমে আমি এবং এমএ জামান একটি জরুরী কাজে ওই সময় পৌরসভায় গিয়েছিলাম।

সোনারগাঁ পৌরসভার ৭নং ওয়ার্ড কাউন্সিলার ও প্যানেল মেয়র নাছিম পাশার সাথে বার বার যোগাযোগ করার চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি।

এ ব্যাপারে সোনারগাঁ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) নাজমুল হোসাইন বলেন, আদালতে বিচারাধীন জমির উপর বিচার করে জমি বুঝিয়ে দেওয়ার কোন এখতিয়ার মাতাব্বরের নেই।

পাঠকের মন্তব্য