সীমান্তে আটক ভারতীয় জেলে প্রণবের বিরুদ্ধে দুই মামলা

সীমান্তে আটক ভারতীয় জেলে প্রণবের বিরুদ্ধে দুই মামলা

সীমান্তে আটক ভারতীয় জেলে প্রণবের বিরুদ্ধে দুই মামলা

রাজশাহীর চারঘাটে পদ্মা-বড়ালের মোহনায় ইলিশ ধরতে সীমান্ত অতিক্রম করে বাংলাদেশে ঢুকে পড়া ভারতীয় জেলে প্রণব মন্ডলের বিরুদ্ধে দুটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে অবৈধভাবে অনুপ্রবেশ আইনে এবং কারেন্ট জাল ব্যবহার করে বে-আইনিভাবে মাছ শিকারের অভিযোগ আনা হয়।

বৃহস্পতিবার (১৭ অক্টোবর) রাত সাড়ে ১০টার দিকে বিজিবির পক্ষ থেকে চারঘাট মডেল থানায় মামলা দুটি দায়ের করা হয়। চারঘাট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সমিত কুমুর কুন্ডু রাত ১১টার দিকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, চারঘাট সীমান্ত করিডর ফাঁড়ির বিজিবি সদস্যরা আটক ভারতীয় জেলে প্রণব মন্ডলকে থানায় হস্তান্তর করেছেন। রাতে তাকে থানায় খেতে দেওয়া হয়। তিনি পুরোপুরি সুস্থ রয়েছেন। তার বিরুদ্ধে সীমান্ত অতিক্রম করে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে অনুপ্রবেশ ও বে-আইনিভাবে মাছ ধরার অভিযোগে দুটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

ওসি বলেন, মামলায় তাকে গ্রেফতার দেখানো হয়েছে। রাতে তাকে থানা হাজতে রাখা হবে। শুক্রবার (১৮ অক্টোবর) ভারতীয় জেলেকে রাজশাহী চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করা হবে। আদালতের নির্দেশনা অনুযায়ী পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এর আগে রাত সাড়ে ৯টার দিকে বিজিবি-১ ব্যাটালিয়নের রাজশাহী সদর দফতরে প্রেস ব্রিফিং করেন ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল ফেরদৌস জিয়াউদ্দিন মাহমদু। তিনি জানান, মা ইলিশ সংরক্ষণ কর্মসূচির আওতায় মৎস্য কর্মকর্তার উপস্থিতিতে পদ্মা নদীতে অভিযানে যায় বিজিবি। এ সময় মাছ ধরার সময় তিনজন জেলেকে আটকের চেষ্টা করা হলে দুইজন পালিয়ে যান। তবে একজনকে প্রায় ৪ কেজি কারেন্ট জালসহ আটক করা হয়।

লেফটেন্যান্ট কর্নেল ফেরদৌস মাহমুদ বলেন, বৃহস্পতিবার বিকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত বিজিবি-১ ব্যাটালিয়ন ও ১১৭ বিএসএফ ব্যাটালিয়নের মধ্যে পতাকা বৈঠক হয়েছে। তবে সেখানে জেলেকে আমরা হস্তান্তর করিনি। আইন অনুযায়ী তার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। বৈঠকে বিএসএফ কমান্ড্যান্ট দাবি করেছেন, তাদের একজন জওয়ান নিহত এবং একজন আহত হয়েছেন। আমরা বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দিয়েছি।

উভয়পক্ষের মধ্যে শান্তিপূর্ণভাবে পতাকা বৈঠক শেষ হয়েছে বলেও জানান বিজিবির এ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা।

ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) বরাত দিয়ে দেশটির শীর্ষ গণমাধ্যমগুলো তাদের প্রকাশিত সংবাদে দাবি করে বিজিবি ও বিএসএফ গুলি বিনিময়ের সময় গুলিবিদ্ধ হয়ে বিএসএফ-এর হেড কন্সটেবল বিজয় ভান সিং নিহত হয়েছেন। তার মাথায় গুলিবিদ্ধ হয়। আহত হয়েছেন রাজবীর সিং নামে আরেক জওয়ান। তাকে উদ্ধার করে মুর্শিদাবাদ মেডিকেল কলেজ ভর্তি করা হয়।

পাঠকের মন্তব্য