ভারত থেকে আলাদা হয়ে মনিপুর স্টেট কাউন্সিল গঠন

ভারত থেকে আলাদা হয়ে মনিপুর স্টেট কাউন্সিল গঠন

ভারত থেকে আলাদা হয়ে মনিপুর স্টেট কাউন্সিল গঠন

ভারত থেকে আলাদা হওয়ার জন্য দীর্ঘদিন ধরেই চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় মনিপুর রাজ্য। স্বাধীন ও স্বতন্ত্র একটি দেশ হিসেবে স্বীকৃতি পেতে চায় তারা। অবশেষে এরই ধারাবাহিকতায় এবার মনিপুরের স্বাধীনতার ঘোষণা করলেন অঞ্চলটির শীর্ষ নেতারা।

বুধবার (৩০ অক্টোবর) জিও নিউজ, আল জাজিরা, দ্য হিন্দুস্তান টাইমসসহ বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক বার্তা সংস্থার প্রকাশিত সংবাদে বলা হয়, মনিপুরের স্বাধীনতার ডাক দিয়েছে সেখানকার শীর্ষ নেতারা। রাজ্যটির প্রতিনিধিত্বকারী রাজা লেইসেম্বা সানাজাওবা ভারত থেকে আলাদা হয়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন। এ সময় ভারত থেকে আলাদা হয়ে মনিপুর স্টেট কাউন্সিল গঠনেরও ঘোষণা দেন তিনি।

প্রকাশিত সংবাদের তথ্য মতে, লন্ডনে এক সংবাদ সম্মেলনে মনিপুর স্টেট কাউন্সিলের মুখ্যমন্ত্রী ইয়াম্বেন বাইরেন এবং পররাষ্ট্র ও প্রতিরক্ষামন্ত্রী নারেংবাম সামারজিত বলেন, তারা মনিপুরের রাজা লেইসেম্বা সানাজাওবা-এর পক্ষ থেকে কথা বলছেন এবং আনুষ্ঠানিকভাবে মনিপুরের নির্বাসিত সরকার গঠনের ঘোষণা দিচ্ছেন।

সেন্ট্রাল লন্ডনকে ভিত্তি করেই তাদের এই নির্বাসিত সরকার গঠিত হবে। এ সময় সংবাদ সম্মেলন করা নেতারা একটি নথি উপস্থাপন করেন যেখানে মনিপুরের মহারাজা রাজ্যটির রাজনৈতিক সমস্যা সমাধানের জন্য তাদের নির্দেশ দেওয়ার বিষয়টি উল্লেখ রয়েছে।

মনিপুর স্টেট কাউন্সিলের মুখ্যমন্ত্রী এবং পররাষ্ট্র ও প্রতিরক্ষামন্ত্রী এটাও জানিয়েছেন, তারা ইতোমধ্যে যুক্তরাজ্যে রাজনৈতিক আশ্রয় প্রার্থনা করেছেন। কারণ, ভারতে থাকলে স্বাধীনতার ঘোষণা দেওয়ায় তাদের গ্রেফতার করা হবে এবং শাস্তির আওতায় নিয়ে আসা হবে।

সংবাদ সম্মেলনে তারা বলেন, স্বাধীন মনিপুর সরকার গঠনের বিষয়টি আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সামনে তুলে ধরার এখনই উপযুক্ত সময়। জাতিসংঘের অন্তর্ভুক্ত সব দেশকে আমাদের স্বীকৃতি দেওয়ার জন্য আহ্বান জানাচ্ছি।

তারা আরও বলেন, মনিপুরের ৩০ লাখ মানুষ স্বাধীনতা চায়। আমরা এর আগে ভারতের সঙ্গে থাকার চেষ্টা করলেও বিনিময়ে মিলেছে ভারতের ঘৃণা এবং যুদ্ধ।

পাঠকের মন্তব্য