নবীগঞ্জে গরু ও ছাগল চুরি : বাবা মেয়েসহ জনতার হাতে আটক  

নবীগঞ্জে গরু ও ছাগল চুরি : বাবা মেয়েসহ জনতার হাতে আটক  

নবীগঞ্জে গরু ও ছাগল চুরি : বাবা মেয়েসহ জনতার হাতে আটক  

নবীগঞ্জের পল্লীতে স্থানীয় হাওর থেকে গরু ও ছাগল চুরি করে পালানোর সময় স্থানীয় চেয়ারম্যানের হাতে ধরাশায়ী হলেন পিতা-কন্যাসহ ৩ জন। এ ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। গতকাল সোমবার সকালে অনুষ্টিত শালিসের মাধ্যমে চোরের দল চোরাইকৃত গরু ও ছাগল মালিকের নিকট ফেরৎ দিয়ে ভবিষ্যতে এমন জঘন্য ঘটনা করবে না মর্মে লিখিত মুচলেকা দেয়।

স্থানীয় লোকজন জানান, উপজেলার বাউসা ইউপির নাদামপুর গ্রামের মৃত বাটুল মিয়ার ছেলে আঃ ছালাম  তার স্বামী পরিত্যক্তা মেয়ে তানিয়া বেগম ও তার খালাতো ভাই ফয়সল মিয়া মিলে স্থানীয় হাওড় থেকে গত শুক্রবার দিনদুপুরে জনৈক কৃষকের ৩টি গরু ও ৩টি ছাগল চুরি করে পালিয়ে যাওয়ার সময় রিফাতপুর রাস্তায় তাদেরকে দেখে স্থানীয় চেয়ারম্যানসহ স্থানীয়দের সন্দেহ হয়। পরে তাদেরকে আটক করে সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ড মেম্বার আল হেলালকে খবর দিয়ে সামাজিক বিচারের শর্তে চোরাই মালামালসহ তাদেরকে জিম্মায় দেয়া হয়। 

গতকাল সোমবার এ ঘটনায় নাদামপুর নজির মিয়া লন্ডনীর বাড়িতে শালিস বৈঠক অনুষ্টিত হয়। নবীগঞ্জ শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি এওর মিয়ার সভাপতিত্বে শালিসে স্থানীয় চনপ্রতিনিধিসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। শালিস বিচারে চোরাই গরু ও ছাগল মালিকের নিকট ফেরৎ দেয়া হয়। গরু আটক রেখে অসুস্থ হওয়ায় ২ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। এছাড়া ভবিষ্যতে এমন ঘৃণ্যতম কাজ করবে না মর্মে লিখিত অঙ্গিকার করেন পিতা-কন্যা। এ ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। 

পাঠকের মন্তব্য