চিকিৎসকদের মৃত্যুর হার বাড়তে থাকায় উদ্বিগ্ন প্রশাসন

চিকিৎসকদের মৃত্যুর হার বাড়তে থাকায় উদ্বেগ

চিকিৎসকদের মৃত্যুর হার বাড়তে থাকায় উদ্বেগ

করোনা সংক্রমণ (Coronavirus) থেকে দেশবাসীকে সুস্থ করে তুলতে গিয়ে প্রাণ যাচ্ছে চিকিৎসকদেরই। দেশের করোনায় চিকিৎসকদের মৃত্যুর হার বাড়তে থাকায় উদ্বিগ্ন প্রশাসন। জীবন বিপন্ন করে এভাবে মানুষের সেবা করতে গিয়ে নিজেরাই মারণ ভাইরাসের বলি হচ্ছেন চিকিৎসকরা। গত দু’দিনে সে দেশে আরও চার চিকিৎসকের মৃত্যুতে তাঁদের নিরাপত্তা নিয়েও উঠছে প্রশ্ন।
 
প্রতিদিন দেশে সরকারিভাবে ৩৫ থেকে ৪০ জনের মৃত্যু হচ্ছে করোনা আক্রান্ত হয়ে। সম্প্রতি এই মৃতের তালিকায় রয়েছেন চিকিৎসকরাও। করোনায় আক্রান্ত হয়ে মোট ৫৩ জন চিকিৎসকের মৃত্যু হলো। করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশনের (BMA) সভাপতি মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন। এদিকে করোনায় দৈনিক মৃতের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। 

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ৪০ জন মৃত্যুবরণ করেছেন। এ নিয়ে এখন পর্যন্ত দেশে করোনায় মোট মৃত্যুবরণ করেছেন ১ হাজার ৬৬১ জন। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় ১৮ হাজার ৪৯৮ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৩ হাজার ৮৬৮ জনের করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। দেশে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ১ লাখ ৩০ হাজার ৪৭৪ জন।

বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশনের (BMA) তথ্য অনুযায়ী, করোনায় সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত হয়েছেন ঢাকা জেলার চিকিৎসকেরা। এই জেলায় বৃহস্পতিবার পর্যন্ত ৫৩৮ জন চিকিৎসক আক্রান্ত হয়েছেন। চিকিৎসকদের পাশাপাশি নার্স ও অন্যান্য স্বাস্থ্যকর্মীর মধ্যেও করোনা সংক্রমণ বাড়ছে। বৃহস্পতিবারের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, ১১৯৯ জন নার্স এবং ১৬২৮ জন অন্যান্য স্বাস্থ্যকর্মী আক্রান্ত হয়েছেন। এভাবে চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের মধ্যে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ায় কপালে চিন্তার ভাঁজ বাড়ছে প্রশাসনের। নিজেদের সুরক্ষা নিয়ে চিন্তিত ডাক্তাররাও।

পাঠকের মন্তব্য