নবীগঞ্জে ডাকাতির প্রস্ততিকালে শীর্ষ ৫ ডাকাত গ্রেফতার

নবীগঞ্জে ডাকাতির প্রস্ততিকালে শীর্ষ ৫ ডাকাত গ্রেফতার

নবীগঞ্জে ডাকাতির প্রস্ততিকালে শীর্ষ ৫ ডাকাত গ্রেফতার

নবীগঞ্জে ডাকাতির প্রস্ততিকালে অভিযান চালিয়ে আন্তঃজেলার ৫ শীর্ষ ডাকাতকে গ্রেফতার করেছে নবীগঞ্জ থানা পুলিশ। বুধবার গভীর রাতে নবীগঞ্জ উপজেলার বালিদাড়া এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। 

এসময় তাদের কাছ থেকে ডাকাতির সরঞ্জাম ও ডাকাত সদস্যদের তালিকা সম্বলিত একটি খাতা উদ্ধার করা হয়। পুলিশ সূত্রে জানা যায়, বুধবার দিবাগত রাত অর্থাৎ বৃহস্পতিবার গভীর রাতে নবীগঞ্জ উপজেলার বালিদাড়া এলাকায় ৫ সদস্যের একটি ডাকাতদল ডাকাতির প্রস্ততি নিচ্ছে এমন খবর আসলে, নবীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ ডালিম আহমদের তও্বাবধানে ও পুলিশ পরিদর্শক ওসি (তদন্ত) আমিনুল ইসলামের নেতৃত্বে এসআই মোঃ আবু সাঈদ, এসআই শফিকুর রহমান, এসআই সম্রাট মিয়া, এএসআই সুফিয়ান মিয়া, এএসআই রুবেল মিয়াসহ একদল পুলিশ নবীগঞ্জ উপজেলার বালিদাড়া এলাকায় অভিযান চালায়। 

এ সময় ডাকাতির প্রস্তুতিরত আন্তঃজেলা শীর্ষ ৫ ডাকাত গোয়াইনঘট থানার লাঠি এলাকার জয়নাল আবেদীনের পুত্র রিপন আহমেদ (২৫), বি-বাড়িয়া থানার বীরগাঁও এলাকার আঃ খালেকের পুত্র শাহাব উদ্দিন (২৬), সুনামগঞ্জ জেলার বিশম্বরপুর থানার নাইমুলমল্লা হোসেনের পুত্র মতিবুর রহমান (২৫), মৌলভিবাজার জেলার রাজনগর থানার কদম হাটা গ্রামের মৃত মোস্তফা মিয়ার পুত্র আহাদ মিয়া (৪৭), নবীগঞ্জ থানার গুপলার বাজার এলাকার রোস্তমপুর গ্রামের জমশেদ মিয়ার পুত্র কামরুল হাসান (২৬) কে দা, চাকু, সাবল, লোহার রড ও ডাকাতির বিভিন্ন সরঞ্জামাদীসহসহ গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত ডাকাতদলের কাছ থেকে ১টি লোহার সাবল, ১টি রড, ১টি পলেষ্টারের ব্যাগ, উক্ত ব্যাগে অনেক ডাকাতের তালিকা সম্বলিত টালী খাতা, ১টি কোমরে ঝুলানোর ব্যাগ, ১টি রশি, ১টি স্টিলের টিপ চাকু উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। 

বিষয়টি নিশ্চিত করে নবীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ ডালিম আহমদ বলেন, তাদেরকে ডাকাতির প্রস্ততিকালে হাতেনাতে গ্রেফতার করা হয়েছে, তারা আন্তঃজেলা ডাকাতদলের শীর্ষ ডাকাত, তাদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট আইনে নবীগঞ্জ থানায় মামলা রুজু করে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

পাঠকের মন্তব্য