সুশীল সমাজ কেন রাষ্ট্রের সহায়ক হয়ে উঠতে পারেননি

গোলাম সারয়ার, গবেষক ও কলামিস্ট

গোলাম সারয়ার, গবেষক ও কলামিস্ট

অর্থনৈতিক সমিতি থেকে ধুম করে বলে দেওয়া হলো, গত ৪৬ বছরে দেশ থেকে আট লাখ কোটি টাকা পাচার হয়ে গেছে। তথ্যটি তাঁরা দিলেও তাঁরা নিশ্চিত করে বলেননি কি কি পদ্ধতিতে তাঁরা এই সংখ্যা বের করেছেন। 

বাংলাদেশসহ তৃতীয় বিশ্বের দেশগুলো থেকে টাকা পাচার হয়, এটি সত্য। কিন্তু সেটা আট লাখ কোটি কিভাবে নিশ্চিত হলেন তাঁরা?  এটি আরো কম বা বেশি হতে পারেনা ? পারেতো। কিন্তু তাঁরা সঠিক তথ্য উপাত্ত উপস্থাপন না করে প্রতিবছর বাজেট আসলে এরকম একটি অংক প্রকাশ করেন, যা ক্রশ চেক করার কোন সুযোগ থাকেনা।

আমরা এই তথ্যের উৎস জানতে চাই, ক্রশচেক করতে চাই এবং অর্থ লুণ্ঠনের বিরুদ্ধে রাষ্ট্র কি কি পদক্ষেপ নিচ্ছে সে প্রশ্ন নিয়ে রাষ্ট্রের কাছে যেতে চাই।

কিন্তু আমরা দেখে আসছি, আমাদের দেশের সুশীল সমাজ রাষ্ট্রের ইতিবাচক খবরে উচ্ছ্বসিত হন না। শুধু এই সরকারের আমলে নয়, কোন সরকারের আমলেই তাঁরা উন্নয়নে খুশি থাকেননি। 

তারই ধারাবাহিকতায় পদ্মা সেতু নিয়েও সুশীল সমাজের ভিতরে কোন উচ্ছ্বাস নেই। তাঁরা বরং নেতিবাচক খবরের ভিতরেই আনন্দ খুঁজে নেন।  সুশীল সমাজ কেন রাষ্ট্রের সহায়ক হয়ে উঠতে পারেননি কিংবা রাষ্ট্র কেন সুশীল সমাজের চিন্তাকে আমলে নেয়না, এর পিছনে দার্শনিক কারণ আছে। 

কারণ নিহিত আছে জার্মান দার্শনিক হেগেল এবং তাঁর শিষ্য মহামতি কার্ল মার্ক্সের সুশীল সমাজ নিয়ে মতবাদের ভিতরে।

হেগেল বলেছিলেন, রাষ্ট্র একটি স্বয়ংসম্পূর্ণ সত্ত্বা। সুশীল সমাজ রাষ্ট্রের ভিতরের উপাদান হলেও রাষ্ট্র তার উপর নির্ভর করেনা। হেগেল শেষ করেন এই বলে; দারিদ্র্য, বৈষম্য এবং বিরোধিতাই হলো সুশীল সমাজের স্বাভাবিক প্রবণতা।
অন্যদিকে মার্ক্স যা বলেছিলেন তার মর্মার্থ হলো, রাষ্ট্র সুশীল সমাজের উপর নির্ভরশীল।

যেহেতু আমাদের দেশের সুশীল সমাজ বলতে আমরা যাঁদের বুঝি তাঁরা ঐতিহাসিকভাবে মার্ক্সের ভাবশিষ্য, তাই তাঁরা দেখতে চায় রাষ্ট্র সিভিল সোসাইটির উপর নির্ভর করুক। তাই তাঁরা হেগেলের দেয়া রায়ের মত আচরণ করেই যাচ্ছেন।

আমাদের পরামর্শ হলো, রাষ্ট্র এবং সিভিল সোসাইটি মিলেমিশে রাষ্ট্রের উন্নয়নে কাজ করুক, বিচ্যূতি নিয়ে বাস্তব তথ্য পরস্পরে বিনিময় করুক এবং রাষ্ট্রের উন্নয়নে উভয়পক্ষ উচ্ছ্বসিত হোক। তবেই আমরা একটি মজবুত রাষ্ট্র পেতে পারি।

ফেসবুক স্ট্যাটাস লিঙ্ক : Md Golam Sarwar
লেখক : গবেষক ও কলামিস্ট 

পাঠকের মন্তব্য