মসজিদে হামলাকারী ভারসাম্যের পরীক্ষা করতে নির্দেশ 

মসজিদে হামলাকারী

মসজিদে হামলাকারী

মার্চ মাসে নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চ শহরের মসজিদে এলোপাথাড়ি গুলি চালিয়ে ৫০ জনকে হত্যা করে এক অস্ট্রেলীয় যুবক৷ শুক্রবার স্থানীয় আদালত তার মানসিক ভারসাম্যের পরীক্ষা করতে কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছে৷

গত ১৫ মার্চ ক্রাইস্টচার্চে জুম্মার নামাজের সময় মসজিদে হামলায় ৫০ জন নিহত হন৷ শুক্রবার হামলাকারী অস্ট্রেলীয় নাগরিক ব্রেন্টন টেরান্টের মামলায় শুনানি দেয় আদালত৷

তার বিরুদ্ধে মোট ৮৯টি অভিযোগের বাইরে পরবর্তীতে আরও অভিযোগ আনা হতে পারে বলে জানিয়েছে পুলিশ৷ কিন্তু স্থানীয় নিয়ম অনুযায়ী, আইনি প্রক্রিয়া শুরুর আগে অভিযুক্তের মানসিক স্বাস্থ্যের বর্তমান অবস্থা যাচাই করতে হয়৷

নিউজিল্যান্ডের আইন বলছে, অভিযুক্তের বিচারকার্য সম্পন্ন হবার আগে দেখে নিতে হয় যে, সে মানসিকভাবে যথেষ্ট সুস্থ কিনা৷ শুক্রবারের শুনানিতে তাই এমন আদেশ শোনালো আদালত৷ এরপর, করা হবে ব্রেন্টন টেরান্টের মানসিক পরীক্ষা৷

কেমন ছিল শুনানি ?

মসজিদে হামলার ঘটনায় মূল অভিযুক্ত ব্রেন্টন টেরান্টের বিরুদ্ধে রয়েছে ৫০টি ধারায় খুনের অভিযোগ৷ শুক্রবারের শুনানিতে সশরীরে উপস্থিত ছিল না টেরান্ট৷ ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে আদালতে হাজির করানো হয় তাকে৷ বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবর থেকে জানা গেছে, অকল্যান্ডের একটি ‘ম্যাক্সিমাম সিকিউরিটি' কারাগারে রাখা হয়েছে টেরান্টকে৷

ইতিমধ্যে, টেরান্টের হয়ে লড়ার জন্য দু'জন আইনজীবীকে নিযুক্ত করা হয়েছে৷ কিন্তু তার বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগের ভিত্তিতে পালটা সওয়াল করেনি তার আইনজীবী৷

পাঠকের মন্তব্য