জার্সির নতুন ডিজাইন প্রকাশ করেছে বিসিবি

জার্সির নতুন ডিজাইন প্রকাশ করেছে বিসিবি

জার্সির নতুন ডিজাইন প্রকাশ করেছে বিসিবি

সমর্থকদের রোষের মুখে পড়ে শেষমেশ বিশ্বকাপের জার্সির রং বদলাতে বাধ্য হল বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। প্রাথমিক পর্যায়ে আসন্ন বিশ্বকাপের জন্য বাংলাদেশের জার্সি প্রস্তুত করা হয়েছিল সম্পূর্ণ সবুজ রংয়ের ছোঁয়ায়। অবশেষে সেই জার্সিতে লাল রং যোগ করে তা পুনরায় বিশ্বকাপের জন্য প্রস্তুত করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হল।

ইতিমধ্যেই সম্পূর্ণ সবুজের ছোঁয়ায় প্রস্তুত বিশ্বকাপের প্রাথমিক জার্সি পড়ে শের-ই বাংলা ন্যাশনাল স্টেডিয়ামে সোমবার ফটো সেশনে অংশ নিয়েছিলেন বাংলাদেশ ক্রিকেটাররা। ইন্টারনেটে বিশ্বকাপের জন্য সেই জার্সি দেখে প্রশ্ন তোলেন সেদেশের নেটিজেনরা। দেশের পতাকার সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে জার্সিতে লালের ছোঁয়া দেওয়ার দাবি তোলেন তারা।

সূত্রের খবর নেটিজেনদের দাবিকে পূর্ণ সমর্থন জানিয়ে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড আইসিসি’র কাছে জার্সির রং বদলের আর্জি নিয়ে নিয়ে দ্বারস্থ হয়। ইএসপিএন ক্রিকইনফোকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে বিসিবি প্রেসিডেন্ট নাজমুল হাসান জানান, ‘জার্সি উন্মোচনের পর সোশ্যাল মিডিয়ায় যথেষ্ট জলঘোলা হয়েছে। এরপরই আমি বোর্ড ডিরেক্টরের সঙ্গে জার্সির ডিজাইন সংক্রান্ত ইস্যুতে আলোচনায় বসি।’

এপ্রসঙ্গে সমর্থকদের চাহিদাকে অগ্রাধিকার দিয়ে জার্সিতে লালের ছোঁয়া যোগ হচ্ছে বলে জানান নাজমুল। প্রেসিডেন্টের মতে, ‘প্রাথমিকভাবে আইসিসি আমদের জার্সিতে লাল রং রাখতে নিষেধ করেছিল। কিন্তু আমাদের লাল রংয়ের বিকল্প জার্সি তৈরিই ছিল ছিল। তবে নতুন জার্সির মাঝের অংশে লালের দেখা মিলবে। তার উপর সাদায় লেখা থাকবে ক্রিকেটারদের নাম ও জার্সি নম্বর।’

দেশের জাতীয় পতাকায় সবুজের পাশাপাশি লাল রং একটি ভীষণ গুরুত্ব বহন করে। তাই বিশ্বকাপের জার্সিতে সবুজের পাশে লালও অবশ্যই তাকা উচিৎ, মনে করে নাজমুল। উল্লেখ্য, সোমবার বাংলাদেশের জার্সি উন্মোচনের পরই সম্পূর্ণ সবুজ জার্সিকে কেউ কেউ পাকিস্তানের জার্সির সঙ্গেও তুলনা করেন সোশ্যাল মিডিয়ায়।

পাঠকের মন্তব্য