বিকিনিতে তাক লাগালেন যে পাকিস্তানের সুন্দরীরা

বিকিনিতে তাক লাগালেন যে পাক-সুন্দরীরা

বিকিনিতে তাক লাগালেন যে পাক-সুন্দরীরা

হাজারো সংস্কারের ঘেরাটোপ তাঁদের অহরহ ঘিরে থাকে৷ তাঁদের ঘিরে থাকে নিষেধ আর ফতোয়ার বোরখা৷ কিন্তু সে সব ছাপিয়েও ফ্যাশন দুনিয়ায় ঝলমলে হয়ে ওঠেন কেউ কেউ৷ ছড়িয়ে দেন তাঁদের সৌন্দর্যের রোশনাই৷ বিকিনিতে পাক-সুন্দরীরা বদলে দেন পাকিস্তান সম্পর্কে সব ধারণা৷ যুদ্ধ থেকে সন্ত্রাসের অভিযোগে অভিযুক্ত ছবিটি সরিয়ে রেখে, এই সুন্দরীরা অন্তত দেশটির একটি সুন্দর ধারণা তুলে ধরেন পৃথিবীর সামনে৷

কারা এমন সাহসী হয়েছিলেন? পাকিস্তানের ভূমি থেকেই দুনিয়ার সামনে কারা তুলে ধরেছিলেন সৌন্দর্যের ডালি?

শাহঞ্জয় হায়াত

পাকিস্তানি পরিবেশেই নিজেকে আন্তর্জাতিক ফ্যাশন দুনিয়ার জন্য উপযুক্ত হিসেবে তৈরি করেছেন এই পাক-সুন্দরী৷ ‘বিকিনি বডি’ তৈরি করা চাট্টিখানি কথা নয়৷ সে পরীক্ষায় ইনি দশে দশ পাবেন৷ অসাধারণ সৌন্দর্য ও শরীরি আবেদনে গোটা দুনিয়ার নজর কেড়েছেন তিনি৷

অ্যাঞ্জেলিকা তাহির

পাকিস্তানি সুন্দরীদের মধ্যে ইনিও অন্যতমা৷ ২০১৫ সালে মিস পাকিস্তান প্রতিযোগিতায় তিনিই পেয়েছিলেন সেরার শিরোপা৷

মহলিজ সরকারি

বিকিনি পরিহিতা হয়ে ইনিও তাক লাগিয়েছিলেন গোটা দুনিয়াকে. সারা বিশ্বের ফ্যাশন দুনিয়ায়ই তাঁর সৌন্দর্যের তারিফ করেছে৷ ২০০৭ সালে ‘মিস পাকিস্তান ওয়ার্ল্ড’ হয়েছিলেন তিনি৷

আয়েশা গিলানি

পাক-সুন্দরীদের মধ্যে ইনিও সাড়া জাগিয়েছিলেন গোটা বিশ্বে৷ ২০০৯ সালে দেশের সেরা সুন্দরী নির্বাচিত হন আয়েশা৷ তারপর থেকে নানা করাণে ফ্যাশন দুনিয়ায় খবরের শিরোনামে থেকেছেন তিনি৷

জানিব নভিদ

নিজের শরীরী আবেদন কীভাবে নান্দনিক ভাবে সৌন্দর্যের আসরে মেলে ধরতে হয় জানেন তিনি৷ দেশের সেরা সুন্দরীও হয়েছেন৷ বিকিনিতে মোহময়ী হয়ে সারা দুনিয়াকে চমকে দিয়েছিলেন এই পাক-সুন্দরী৷

পাঠকের মন্তব্য