দশম শ্রেণির ছাত্রীকে লাগাতার ধর্ষণ, গ্রেপ্তার দুই ভাই

দশম শ্রেণির ছাত্রীকে লাগাতার ধর্ষণ, গ্রেপ্তার দুই ভাই

দশম শ্রেণির ছাত্রীকে লাগাতার ধর্ষণ, গ্রেপ্তার দুই ভাই

এক কিশোরীকে জোর করে অপহরণের পর রাতভর ধর্ষণ করল দুই ভাই। অভিযুক্ত নয়ন মোল্লা (১৯) ও আরিফুল ইসলাম (২০)-কে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। ঘটনাটি ঘটেছে বাংলাদেশের দক্ষিণ প্রান্তে অবস্থিত পিরোজপুর (Pirojpur) জেলার মঠবাড়িয়া শহরে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, নির্যাতিতা ওই কিশোরী স্থানীয় একটি স্কুলে দশম শ্রেণিতে পড়াশোনা করে। গত রবিবার রাত সাড়ে ৯টার সময় প্রাইভেট টিউটরের কাছে পড়ে বাড়ি ফিরছিল সে। রাস্তায় আচমকা তার উপর অস্ত্র নিয়ে চড়াও হয় নয়ন ও আরিফুল। ওই কিশোরীকে জোর করে অপহরণের পর স্থানীয় কল্লাকাটা ব্রিজ সংলগ্ন একটি বাড়িতে নিয়ে গিয়ে আটকে রাখে। তারপর প্রায় ৬ ঘণ্টা ধরে পালা করে মোট আটবার মেয়েটিকে ধর্ষণ করে ওই দুই যুবক।

এদিকে বহুক্ষণ পর্যন্ত ওই ছাত্রী বাড়ি না ফেরায় তার পরিবারের সদস্যরা খোঁজাখুঁজি শুরু করেন। কিন্তু, কোথায় তার সন্ধান না পেয়ে অবশেষে স্থানীয় থানার দ্বারস্থ হন। তদন্তে নেমে গোপন সূত্রে খবর পেয়ে সোমবার ভোরে কল্লাকাটা ব্রিজ সংলগ্ন ওই বাড়ি থেকে নির্যাতিতা কিশোরীকে উদ্ধার করে পুলিশ। অভিযুক্ত দুই যুবককেও গ্রেপ্তার করা হয়।

মঠবাড়িয়া থানার পুলিশ আধিকারিক শহিদুল ইসলাম জানান, গোপন খবর ভিত্তিতে রাতভর অভিযান চালিয়ে সোমবার ভোরে দুই যুবককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। পাশাপাশি ওই ছাত্রীটিকে শারীরিক পরীক্ষার জন্য পিরোজপুর জেলা সিভিল সার্জেনের অফিসে পাঠানো হয়েছে।

পাঠকের মন্তব্য