জামালপুর বটতলায় বাড়িতে সন্ত্রাসী হামলা; আহত ৪

জামালপুর বটতলায় বাড়িতে সন্ত্রাসী হামলা; আহত ৪

জামালপুর বটতলায় বাড়িতে সন্ত্রাসী হামলা; আহত ৪

জামালপুর শহরের বাগেরহাটা এলাকায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে কথাকাটাকাটির একপর্যায়ে বটতলা এলাকার স্থানীয় সন্ত্রাসীরা হামলা চালিয়ে ৪ জনকে গুরুতর আহত করে। ৩ জুন সকালে আতিয়ার রহমানের বাড়িতে এ হামলার ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়রা জানান, ৩ জুন বৃস্পতিবার সকাল বেলা মাদক ব্যবসায়ী, সন্ত্রাসী সফেদ আলী মদ্যপ্রাণ অবস্থায় হোসেন আলীর বাড়ির সামনে দিয়ে যাওয়ার সময় বাড়ির ছেলে মেয়েদের উদ্দেশ্য করিয়া অশ্লীল গালিগালাজ করিতে থাকে এ সময় আতিয়ার রহমানের তাকে গালি গালাজ করার জন্যে নিষেদ করিলে সফেদ আলীগংরা ক্ষিপ্ত হয়। 

এ সময় সফেদ আলীর নেতৃত্বে ধারালো অস্ত্র নিয়ে সন্ত্রাসী যুবরাজ (২৭), জবান (৩২), রনকুল (২০), জিদান (১৮) ও জনি (২৩) গংরা হামলা চালায় এ সময় সন্ত্রাসী হামলায় হোসেন আলী, সাবিনা বেগম, খোদেজা বেগম, জিন্নাহ বেগম, মজিবর রহমান ও সাথীসহ অনেকেই গুরুত্বর আহত হন। এর মধ্যে হোসেন আলীকে ধারালো অস্ত্রদিয়ে মাথায় ও শরিলের বিভিন্ন অংশে আঘাত করায় গুরুতর আহত হয়ে জামালপুর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। তার অবস্থা খুবই সংকটাপন্ন। এছাড়াও সাবিনা বেগমকে লোহার রড দিয়ে পিটিয়ে হাত ও পায়ে গুরুতর জখম করায় তিনিও হাসপাতালে চিকিৎসা দিচ্ছেন। 

এ বিষয়ে আহত আতিয়ার রহমান বলেন, সন্ত্রাসী সফেদ আলী গংরা আমাদের বাড়ির যায়গা দিয়ে যাওয়া আসা করে। প্রতিদিন বদ খেয়ে জাওয়ার সময় আমার বাড়ির ছেলে মেয়েদের বিশ্রিভাষায় গালাগালি করে। আমরা কিছু বলি না। ৩ জুন বৃস্পতিবার সকালে তাদের এহেন কাজের প্রতিবাদ করলে সফেদ আলী গংরা আমাদের বাড়িতে ধারালো অস্ত্র, লোহার রডনিয়ে হামলা করে। আমরা এ সন্ত্রাসীর হামলা বিচার দাবী করছি। 
 
এ বিষয়ে জামালপুর কোটে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে মামলা নং- (১) ২০২১, ধারা-১৪৩/৪৪৭/৪৪৮/৩২৩/৮০৭/৩২৬/৩৪ দন্ডবিধি। 

পাঠকের মন্তব্য