Projonmo Kantho logo
About Us | Contuct Us | Privacy Policy
ঢাকা, শনিবার, ২৬ মে ২০১৮ , সময়- ১১:৫৯ পূর্বাহ্ন
Total Visitor: Projonmo Kantho Media Ltd.
শিরোনাম
মাদকবিরোধী অভিযানে ফের ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১০ স্বাস্থ্যসেবায় বিশ্বে পাকিস্তান ও ভারতের চেয়ে এগিয়ে রয়েছে বাংলাদেশ        ইয়াবা ব্যবসার সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ড, নতুন আইন আসছে ‘ওরে মন, হবেই হবে’ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সম্মানসূচক ডি.লিট পাচ্ছেন আজ  যাত্রা শুরু করল বিশ্বভারতীর বাংলাদেশ ভবন মাঠপর্যায়ের জরিপে : বিজয় নিয়ে শঙ্কিত আওয়ামী লীগ, ফুরফুরে বিএনপি  বিদ্রোহী কবি কাজী নজরুল ইসলামের ১১৯তম জন্মবার্ষিকী আজ বাংলাদেশে স্রোতের মতো রোহিঙ্গা, সুনামির মতো মাদক পাঠাচ্ছে মিয়ানমার :  ওবায়দুল কাদের  এবার এমপি বদির বেয়াই ইয়াবা ব্যবসায়ী নিহত 

রাজপথে সক্রিয়রা ছাত্রলীগের নেতা হবেন 


নিজস্ব প্রতিবেদক, প্রজন্মকণ্ঠ

আপডেট সময়: ২৯ এপ্রিল ২০১৮ ১:৫৬ পিএম:
রাজপথে সক্রিয়রা ছাত্রলীগের নেতা হবেন 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সম্মেলন। ছাত্রলীগের সবচেয়ে গুরত্বপূর্ণ ইউনিট ও শীর্ষ শিক্ষা  প্রতিষ্ঠানে শীর্ষপদ পেতে শেষ মূহুর্তের দৌঁড়ঝাপ অব্যাহত রেখেছেন পদপ্রার্থীরা। পদপ্রত্যাশীসহ সকল ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীরা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মতো গুরুত্বপূর্ণ পদে মেধাবী, যারা সবসময় রাজপথে সক্রিয় ছিল, ত্যাগী এবং সাংগঠনিক নেতৃত্ব সম্পন্ন নেতা দেখার প্রত্যাশা করছেন। 

ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ সম্মেলনের উদ্বোধন করবেন। সম্মেলনে প্রধান অতিথি থাকবেন সড়ক ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

এবারের ছাত্রলীগের সম্মেলন গঠনতন্ত্র মেনে নিয়মতান্ত্রিকভাবে হচ্ছে। সুতরাং কথিত সিন্ডিকেট আর নেতা বাছাই করতে সক্ষম হবে না। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সরাসরি নেতৃত্ব  বাছাইয়ের  ক্ষেত্রে তত্ত্বাবধান করবেন বলে জানা গেছে।

আরও জানা গেছে ছাত্রলীগে প্রচুর সংখ্যক অনুপ্রবেশের অভিযোগ রয়েছে। কিন্তু এবার যাতে ভিন্নদলের ছদ্মবেশী কেউ অনুপ্রবেশ করতে না পারে সে ব্যাপারে কঠোর থাকার নির্দেশনা রয়েছে আওয়ামী লীগের হাইকমান্ড থেকে। কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগও বিষয়টি অত্যন্ত গুরুত্ব সহকারে নিয়েছে। রাজপথে সর্বদা যারা সক্রিয়া ছিল, যাদের পরিবার আওয়ামী লীগের সঙ্গে জড়িত, দলের দুঃসময়ে যারা ছাত্রলীগের সঙ্গে জড়িত ছিল এমন নেতরিা মনোনীত হবে বলে সকলের প্রত্যাশা। 

কেমন নেতৃত্ব আসবে এমন প্রশ্নের জবাবে ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ বলেন,  প্রধানমন্ত্রীর এক নম্বর পছন্দ মেধাবী ছাত্র। অবশ্যই যারা বিভিন্ন অভিযোগে অভিযুক্ত তারা আসবেন না। এবং যারা ছাত্রলীগকে ভালোবেসে জীবন বাজি রেখে বিভিন্ন আন্দোলন সংগ্রামে ছিল তারাই নেতৃত্বে আসবেন।  

সাধারণ সম্পাদক এস এম জাকির হোসাইন বলেন, অবশ্যই যারা ত্যাগী, সৎ, দুর্দিনে ছাত্রলীগের সঙ্গে ছিল এবং যারা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মিশন-ভিশন বাস্তবায়ন করতে পারবে এমন নেতৃত্ব আসবেন। 

বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে, শীর্ষ পদে আসীন হওয়ার দৌড়ে প্রাথমিক তালিকায় আছেন বরিশাল অঞ্চল থেকে স্যার এফ রহমান হলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক রুহুল আমিন, কেন্দ্রীয় কৃষি বিষয়ক সম্পাদক বরকত হোসেন হালদার, জহুরুল হক হলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আল নাহিয়ান খান জয়, বিজয় একাত্তর হলের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি শেখ ইনান, কেন্দ্রীয় কমিটির উপ আপ্যায়ন সম্পাদক আরিফুজ্জামান আল ইমরান, কেন্দ্রীয় কমিটির সহ সম্পাদক খাদিমুল বাশার জয়।

ফরিদপুর অঞ্চল থেকে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সহসম্পাদক মোহাম্মদ রনি, ঢাবি ছাত্রলীগের সহসভাপতি বিদ্যুৎ শাহরিয়ার কবির, এফ রহমান হলের সভাপতি হাফিজুর রহমান, বিজয় একাত্তর হল ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ফুয়াদ হোসেন শাহাদাৎ , কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের উপ সম্পাদক নাসির হোসেন, কবি জসিম উদ্দিন হল শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শাহেদ খান, কেন্দ্রীয় কমিটির সমাজ সেবা সম্পাদক রানা হামিদ। 

চট্টগ্রাম অঞ্চল থেকে কেন্দ্রীয় কমিটির উপ সম্পাদক সৈয়দ আরাফাত। 

উত্তরবঙ্গ থেকে কেন্দ্রীয় কমিটির উপ সম্পাদক হুসেইন সাদ্দাম, আল মামুন, বেলা হোসেন বিদ্যুৎ, মুহসীন হল শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মেহেদী হাসান সানী।


আপনার মন্তব্য লিখুন...

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ন বেআইনি
Top