Projonmo Kantho logo
About Us | Contuct Us | Privacy Policy
ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ জানুয়ারী ২০১৯ , সময়- ২:৪২ পূর্বাহ্ন
Total Visitor: Projonmo Kantho Media Ltd.
শিরোনাম
প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী হলেন ফেরদৌস ও শাহ ফরহাদ নেতাজি'কে কেন রাষ্ট্রনায়কের মর্যাদা দেওয়া হল না, ক্ষুব্ধ মমতা সাংবাদিকদের একটা করে ফ্ল্যাট দেবে সরকার আ'লীগের নিরঙ্কুশ বিজয়ের পর জনগণ শান্তিতে : কাদের ফেব্রুয়ারি মাসে বিশ্ব ইজতেমা করার সিদ্ধান্ত ডাকসু নির্বাচন, আগামী ১১ মার্চ বিশ্ব চিন্তাবিদের তালিকায় এবার শেখ হাসিনা  যুবলীগ ও আ'লীগের দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ, গুলিবিদ্ধ ১০ গণতন্ত্র ও উন্নয়ন একসঙ্গে চলবে : প্রধানমন্ত্রী দুদকের পরিচালক সাময়িক বরখাস্ত

ছোট মিরাজের কাঁধে বড় দায়িত্ব !


প্রজন্মকণ্ঠ অনলাইন রিপোর্ট

আপডেট সময়: ৬ জানুয়ারী ২০১৯ ১:২৭ পিএম:
ছোট মিরাজের কাঁধে বড় দায়িত্ব !

বিপিএলে অধিনায়কত্বের অভিষেকটা খুব সুখকর হয়নি মেহেদী হাসান মিরাজের। আগে অনূর্ধ্ব-১৯ ক্রিকেটে দীর্ঘদিন অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করলেও সিনিয়রদের ক্রিকেটে এই প্রথম অধিনায়কত্ব করলেন। ম্যাচটি বাজেভাবে হারের সাথে সাথে নিজের পারফরম্যান্সটাও খুব একটা ভালো হয়নি বিপিএলের সর্বকনিষ্ঠ অধিনায়কের।

ম্যাচ শেষে মিরাজ জানিয়েছেন দলের বোলাররা ভালো পারফর্ম করতে না পারলে অধিনায়কত্বটা স্বাভাবিকভাবেই কঠিন হয়ে পড়ে। অবশ্য নিজের ঘাটতির কথাও অকপটে স্বীকার করেছেন তিনি। ম্যাচ শেষে মিরাজ বলেন, “প্রথমবারের মতো এত বড় মঞ্চে অধিনায়কত্ব করছি। অনেক কিছু শিখতে পেরেছি এ ম্যাচ থেকে। আমার ঘাটতি কোথায়, সেটা আরও পরিষ্কার হয়েছে।”

বাংলাদেশ জাতীয় দলের ভবিষ্যৎ অধিনায়কদের একজন ভাবা হয় মেহেদী হাসান মিরাজকে। বয়সভিত্তিক দলে তাঁর সফলতায় এর মূল কারণ। তবে তাঁর যে এখনো অনেক কিছু শেখার বাকি সেটা মিরাজ ভালো করেই জানেন। কোচ ও দলের সিনিয়র ক্রিকেটারদের কাছে থেকে শেখার জন্য মুখিয়ে আছেন মিরাজও। অধিনায়কত্ব নিয়ে আরো কাজ করার বিষয়ে মিরাজ বলেন, “বয়সভিত্তিক ক্রিকেট শেষ করার তিন বছর পর আবার অধিনায়কত্ব করছি। অনেক দিন পর অধিনায়কত্ব নিয়ে ভাবতে হচ্ছে। যে ঘাটতিগুলো ছিল, কোথায় কোথায় উন্নতি করা যায়, কোচ, সতীর্থদের সঙ্গে আলোচনা করব। শেখার কোনো শেষ নেই। এটা আমার জন্য বড় প্ল্যাটফর্ম। এখান থেকে নিজেকে কতটা এগিয়ে নিতে পারি, কতটা পরিণত করতে পারি সেটাই গুরুত্বপূর্ণ।”

বড় মঞ্চে অধিনায়কত্বের প্রথম ম্যাচে মিরাজের দল রাজশাহী কিংস হেরেছে ৮৩ রানের। ইনিংসের প্রথম থেকেই রাজশাহীর বোলারদের ওপর চড়াও ছিলো ঢাকার দুই উদ্বোধনী ওপেনার। কিন্তু সেই পথে হাঁটতে পারেনি রাজশাহীর ব্যাটসম্যানরা। মিরাজের ভাষায়, “আমার মনে হয়, আমরা ৩০ রান বেশি দিয়েছি। এই উইকেটে ১৯০ রান তাড়া করা অনেক কঠিন। বল নিচু হয়ে আসছিল। আমরা যদি ১৬০-১৭০ রানের মধ্যে রাখতে পারতাম আমাদের জন্য সুযোগ থাকত। আমাদের ব্যাটসম্যানরা যদি ভালো করত তাহলে হয়তো আমরা ভালো একটা স্কোর করতে পারতাম। হয়তো লড়াই করা যেত। ব্যাটসম্যানরা শেষ পর্যন্ত খেলতে পারলে এই স্কোরেও হয়তো ফল আমাদের পক্ষে আসতে পারত।”

বিপিএলের মঞ্চেই নিজের অধিনায়কত্ব ঝালিয়ে নিতে চান মিরাজ। তাঁর বিশ্বাস দ্রুতই ভুল কাটিয়ে নিবেন এবং রাজশাহী কিংসের পরিণত অধিনায়ক হয়ে উঠবেন।


আপনার মন্তব্য লিখুন...

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ন বেআইনি
Top